কালো টাকা ইস্যুতে উত্তাল ওপার বাংলা

ঢাকা: বিদেশ থেকে কালো টাকা উদ্ধার নিয়ে এই মুহূর্তে উত্তাল বাংলাদেশের রাজনীতি। সুইৎজারল্যান্ডের ব্যাঙ্কে গচ্ছিত বাংলাদেশীদের কালো টাকা উদ্ধারে সরকার বিশেষ উদ্যোগ নেবে বলে ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর পরই নতুন মোড় নিয়েছে ‘পদ্মা পাড়ের রাজনীতি’। প্রধানমন্ত্রীর এই ঘোষণার পরই ‘সন্দেহজনক’ প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে বিরোধী দল বিএনপি। যা দেখে আওয়ামি লিগের  কটাক্ষ, ‘সুইস ব্যাংকের টাকা নিয়ে বিএনপির এত ভয় কেন? এ যেন, ‘ঠাকুর ঘরে কে রে, আমি কলা খাই না’।’ প্রসঙ্গত, সুইস ব্যাঙ্কে এই মুহূর্তে অন্তত মোট ৮০০ মিলিয়ন বাংলাদেশী কালো টাকা গচ্ছিত আছে বলে খোদ রাষ্ট্রসংঘ আশঙ্কা প্রকাশ করেছে।

সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের বেআইনি অর্থ উদ্ধার নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় আন্তর্জাতিক তদন্তের দাবি জানিয়েছে বিএনপি। শুধুমাত্র আন্তর্জাতিক তদন্তেই অর্থ পাচারকারীদের সনাক্ত করা সম্ভব বলে দাবি করেন দলের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগির। সেইসঙ্গে বিএনপির কোনও নেতার বিদেশি ব্যাঙ্কে বেআইনি টাকা নেই বলে বলেও দাবি করেন তিনি।

বিএনপি’র ভারপ্রাপ্ত মহাসচিবের আগ বাড়িয়ে করা এই মন্তব্যের মধ্যেই ‘অন্য গন্ধ’ পাচ্ছে শেখ হাসিনার দল। রাজধানী ঢাকার ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সটিটিউটে লিগ সমর্থক গোষ্ঠীর এক সভায় এ সম্পর্কে দলের অন্যতম শীর্ষ নেতা সুরজিৎ সেনগুপ্ত বলেন, ‘দীর্ঘদিন ধরে সুইস ব্যাংকে ৮০০ মিলিয়ন বাংলাদেশি টাকা পাচার করা হয়েছে। এ কথা ইউএনডিপির তথ্যে প্রকাশিত হয়েছে। তবে তারা তো বলেনি যে এই টাকা রাজনীতিবিদদের। এটা তো অসাধু ব্যবসায়ীদেরও হতে পারে। তাহলে বিএনপি এত আতঙ্কিত কেন?’ এর পরই তাঁর সংযোজন, ‘ঠাকুর ঘরে কে রে, আমি কলা খাই না’।’

Advertisement ---
---
-----