ওয়াশিংটন: মার্কিন প্রতিরক্ষা সদরদফতর পেন্টাগন হুঁশিয়ারি দিয়ে জানিয়েছে, উত্তর কোরিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধ শুরু হলে প্রথম দিনেই আমেরিকার ১০ হাজার সেনাক মৃত্যু হবে৷ ইরাক ও আফগান যুদ্ধে যেখানে নিহত হয়েছে সাত হাজার মার্কিন সেনা, সেখানে কোরিয় যুদ্ধে প্রথম দিনেই এ সংখ্যা ছাড়িয়ে যাবে বলে আশংকা করা হয়েছে৷

উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে সম্ভাব্য যুদ্ধের বিষয়ে হাওয়াই দ্বীপে নিজেদের উদ্বেগ জানাতে গোপন বৈঠকে মিলিত হয়েছিলেন আমেরিকার শীর্ষ পর্যায়ের সেনা কর্মকর্তারা। তারাই ওই বৈঠকে এসব কথা বলেছেন। বৈঠকে সম্ভাব্য যুদ্ধে কী কী ঘটতে পারে তা নিয়ে মার্কিন সেনা কর্মকর্তারা বিস্তারিত আলোচনা করেন। বৈঠকের নেতৃত্বে ছিলেন মার্কিন সেনাবাহিনীর চিফ অব স্টাফ জেনারেল মার্ক মিলি এবং মার্কিন স্পেশাল অপারেশনের কমান্ডার জেনারেল রেমন্ড থমাস। তারা বলেছেন, উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে সম্ভাব্য যুদ্ধের প্রথম দিনেই ভয়াবহ বিপর্যয় ঘটে যাবে।

বৈঠকে জেনারেল মিলি বলেন, যুদ্ধে মার্কিন সেনা সদস্য হতাহত হওয়ার পাশাপাশি ব্যাপকসংখ্যক বেসামরিক নাগরিক মৃত্যুর মুখে পড়বে। তিনি বলেন, বর্বরতা এমন পর্যায়ে যাবে যা জীবিত সেনাদের অভিজ্ঞতার সীমার বাইরে৷ পরমাণু ও ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচি নিয়ে যখন আমেরিকার সঙ্গে উত্তর কোরিয়ার চরম উত্তেজনা চলছে তখন এই উদ্বেগ প্রকাশ করলেন মার্কিন সেনা কর্মকর্তারা।

----
--