বেকার যুবক-যুবতিদের স্বনির্ভর হতে বড়সড় সিদ্ধান্ত মুখ্যমন্ত্রীর

কলকাতাঃ  ১০ হাজার ই-রিকশ দেওয়ার ব্যবস্থা করবে রাজ্য সরকার। রাজ্যের গ্রামীণ এলাকায় তা দেওয়া হবে। এমনটাই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ১৮ থেকে ৪৫ বছর বয়সের যুবক-যুবতীরা যাতে খুব সহজে এই ই-রিকশর জন্য ঋণ পান সেজন্যে উদ্যোগী সরকার। ইতিমধ্যে কয়েকটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকের সঙ্গে চুক্তি করছে পশ্চিমববঙ্গ স্বরোজগার নিগম। সরকারের সিদ্ধান্তে কয়েক হাজার বেকার যুবক-যুবতির স্বনির্ভর হবে বলে মনে করা হচ্ছে। আর সে কারণে এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছে সবপক্ষই।

জানা গিয়েছে, ই-রিকশর জন্য মোট দামের মাত্র ৫ শতাংশ টাকা গ্রাহককে দিতে হবে। বাকি টাকা ব্যাংল ঋণ দেবে। ৫০ শতাংশ ঋণ শোধ হয়ে যাওয়ার পর রাজ্য সরকার ৩০ শতাংশ ভর্তুকি দেবে। ইতিমধ্যেই এই ব্যাপারে পশ্চিমবঙ্গ স্বরোজগার নিগম প্রতিটি বিডিও অফিসে নির্দেশিকা পাঠিয়েছে। অনলাইনে আবেদনের ভিত্তিতে ই-রিকশর জন্য আবেদন নেওয়া শুরু হবে। আগামি কয়েকদিনের মধ্যেই এই বিষয়ে আবেদন নেওয়া হবে বলে জানানো হয়েছে।

বাংলা এক সংবাদমাধ্যম প্রকাশিত খবর মোতাবেক, জানা গিয়েছে, রাজ্যে টোটো বন্ধ করে ই-রিকশ চালানোর জন্য রাজ্য সরকার পরামর্শ দিচ্ছে। কিন্তু, বহু যুবক ই-রিকশর জন্য ব্যাংক থেকে ঋণ পাচ্ছেন না বলে মুখ্যমন্ত্রীর কাছে অভিযোগ জমা হয়েছে। তারপরই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশে নিগম ব্যাংকগুলির সঙ্গে কথা বলে বেকার যুবকদের ঋণ দেওয়ার ব্যবস্থা করছে।

----