কলকাতা: অনিয়মিত জীবনযাপন! অনিয়ন্ত্রিত খাদ্যাভ্যাস! অনিদ্র এবং কায়িক শ্রমের অভাবের কারণে হজমের সমস্যা এবং কোষ্ঠকাঠিন্য এখন প্রায় প্রত্যেকের! বয়স যা-ই হোক না কেন, কোষ্ঠকাঠিন্যে ভুগছেন অধিকাংশ মানুষ।

কোষ্ঠকাঠিন্যকে আপাতদৃষ্টিতে তেমন ভয়ানক সমস্যা নয়৷ কিন্তু এর থেকে হতে পারে বড় ধরনের শারীরিক সমস্যা। তাই সময় থাকতেই সতর্ক হতে হবে। কৃত্রিম ওষুধপত্রের চেয়ে প্রকৃতিতে থাকা ওষুধই বেশি কাজে দেয় এক্ষেত্রে। এমনই তিনটি আয়ুর্বেদিক উপায়, যা কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করতে অব্যর্থ।

Advertisement

১. প্রতিদিন রাতে ঘুমাতে যাওয়ার এক ঘণ্টা আগে একটি খোসাসহ পুরো আপেল খাওয়া উচিত। রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে এক কাপ কুসুম গরম জল পান করতে হবে। এটা হজমে সহায়তা করবে এবং কোষ্ঠবদ্ধতা দূর করবে।

২. বড় একটি সাদা এলাচ এক কাপ গরম দুধে ভিজিয়ে রাখতে হবে সারা রাত। সকালবেলা এই এলাচটি থেঁতো করে দুধসহ খেয়ে ফল মিলবে। কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যাটি যদি ভয়াবহ রকমের বেশি হয় তাহলে সকাল ও রাতে একইভাবে দুধসহ এলাচ খেয়ে ফল মিলবে হাতেগরম।

৩. এই নিয়মটি সহজ আবার একটু কষ্টসাধ্যও বটে! রাতের শোবার আগে এক গ্লাস গরম জলে এক চা চামচ মধু ও ১ চা চামচ লেবুর রস মিশিয়ে পান করা যেতে পারে৷  ঘুমতে হবে বাঁ-কাত হয়ে৷সকালে ঘুম থেকে উঠে চিত হয়ে শুতে হবে৷

হাত দু’পাশে রেখে পা উপর দিকে ওঠান। যতটা সম্ভব! এবার ধীরে ধীরে পা নামাতে হবে৷ এইভাবে কয়েকবার করলেই  টয়লেট পেয়ে যাবে। আর যদি এতেও কাজ না হয় তাহলে এক গ্লাস কুসুম গরম জলের সামান্য লবণ মিশিয়ে পান করতে হবে। এরপর আবার পা ওঠা-নামা করতে করলে সুফল পাওয়া যাবে৷

----
--