অনলাইন ভরতি ব্যবস্থার দাবিতে পথে নামল এবিভিপি

স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: ভরতি দুর্নীতির প্রতিবাদে বিক্ষোভ কর্মসূচি করা হয়েছে প্রায় প্রতিটি রাজনৈতিক দলের ছাত্র সংগঠনের তরফ থেকেই৷ প্রদেশ কংগ্রেসের ছাত্র পরিষদ থেকে শুরু করে বাম ছাত্র সংগঠন এসএফএই, পথে নেমেছে সকলেই ৷ প্রতিবাদে সোচ্চার হয়েছে সব দলই৷

কলেজে কলেজে ভরতির নামে ‘তোলাবাজি’ রুখতে এবার পথে নামল আরএসএস-এর ছাত্র সংগঠন অখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদ (এবিভিপি)৷

শুক্রবার দুপুর ২টো নাগাদ শ্যামবাজার পাঁচ মাথার মোড়ে জমায়েত করেন এবিভিপির সদস্যরা৷ এদিন মূলত একটি দাবি নিয়েই শ্যামবাজার থেকে প্রতিবাদ মিছিল করেন তাঁরা৷

- Advertisement -

এবিভিপির রাজ্য মিডিয়া ইনচার্জ অরবিন্দ দত্ত বলেন, ‘‘আমাদের দাবি কেন্দ্রীয়ভাবে অনলাইন ভরতি ব্যবস্থা চালু করতে হবে৷ আমরা প্রায় ২০১২ সাল থেকে এই দাবি তুলে আসছি৷ তৎকালীন শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসু এই বিষয়টি নিয়ে উদ্যোগীও হয়েছিলেন৷ কিন্তু, তখনই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁকে শিক্ষামন্ত্রী পদ থেকে সরিয়ে পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে শিক্ষামন্ত্রী পদে নিয়োগ করেন৷ আর শিক্ষামন্ত্রীর কার্যভার নিয়ে প্রথমেই অনলাইন ভরতি ব্যবস্থা বাতিল করে দেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়৷ আমরা আগের দাবি নিয়েই এখনও আন্দোলন করে যাচ্ছি৷’’

এবিভিপি-র বক্তব্য, বিশ্ববিদ্যালয়ভিত্তিক কেন্দ্রীয় অনলাইন ভরতি ব্যবস্থা চালু করতে হবে৷ এই ব্যবস্থা চালু হলে ভরতি দুর্নীতি বন্ধ হয়ে যাবে বলে মনে করছেন এই সংগঠনের সদস্যরা৷ এদিন এই দাবি নিয়ে প্রায় তিন শতাধিক সদস্য প্রথমে জমায়েত ও তারপর শ্যামবাজার থেকে কলেজ স্কোয়ার পর্যন্ত মিছিল করেন৷ শুধু কলকাতায় নয়৷ এদিন একই দাবিতে রাজ্যের প্রতিটি জেলায় প্রতিবাদ মিছিল করছেন এবিভিপির সদস্যরা৷

Advertisement ---
-----