হাসপাতালে গায়িকার মৃত্যু ,মুখ্যমন্ত্রীর নাম নিয়ে চোখরাঙানি কর্তৃপক্ষের

স্টাফ রিপোর্টার ,কলকাতা : জেলার এক নামকরা গায়িকার চিকিৎসারত অবস্থায় মৃত্যু ও তারপর বেসরকারি হাসপাতালের হুমকির জেরে বিতর্ক ছড়াচ্ছে৷ অভিযোগ, কলকাতার এই হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ সরাসরি মুখ্যমন্ত্রীর নাম নিয়ে মৃতের পরিবারকে শাসানি দিয়েছে৷

কয়েকদিন আগে অরূপা দে নামে উত্তর ২৪পরগণার বনগাঁর বাসিন্দা ও সেখানকার পরিচিত গায়িকা ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে বাইপাসের ধারে একটি বিখ্যাত বেসরকারি হাসপাতালে ভরতি হয়েছিলেন৷ এই হাসপাতালেই তাঁর অস্ত্রোপচার করা হয় ৷ তার পর থেকে ম্যালিগন্যান্ট ম্যালেরিয়ায় আক্রান্ত হন তিনি ৷তার পাশাপাশি সেপ্টিসেমিয়া আক্রান্ত হন এই গায়িকা ৷ শুক্রবার সকালে হাসপাতালেই মৃত্যু হয় তার ৷

এদিকে মৃতার পরিবারের অভিযোগ ‘রুবি হাসপাতালের গাফিলতির জেরেই এই মহিলার মৃত্যু হয় ৷ তাদের অভিযোগ অস্ত্রোপচারের পর থেকেই অবস্থার অবনতি হতে থাকে তার ৷ হাসপাতালে যদি আরও একটু সচেতন হত তাহলে এই ঘটনা এড়ানো সম্ভব হত বলে অভিযোগ তার পরিবারের সদস্যরা ৷

‘মৃতা অরূপা দে-এর বোন মিশমী রায়বণিক জানান, অরূপার অবস্থার অবনতি হচ্ছিল আমরা বুঝতে পারছিলাম৷ তার মৃত্যুর পর হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলতে গেলে মুখ্যমন্ত্রীর নাম নিয়ে হুমকি দেয় তারা ৷ এই ঘটনার জেরে হাসপাতালে উত্তেজনা ছড়ায় ৷ ঘটনাস্থলে পরে আনন্দপুর থানার পুলিশ পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে ৷

অন্যদিকে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বিবৃতি দিয়ে মৃতার মেডিক্যাল রিপোর্ট প্রকাশ্যে আনে৷ কিন্তু তাদের বিরুদ্ধে ওঠা চিকিৎসা গাফিলতি নিয়ে কোনও উচ্চবাচ্য করেনি৷

Advertisement
----
-----