বিজয় মিছিলেই হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু তৃণমূল কর্মীর

স্টাফ রিপোর্টার, বাঁকুড়া: দলের বিজয় মিছিলে হাঁটতে গিয়ে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হল এক তৃণমূল কর্মীর। মৃত তৃণমূল কর্মীর নাম বদন গুলি। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৮৷ বাড়ি বাঁকুড়ার সিমলাপালের হরিণ্যাগুড়ি গ্রামে। ঘটনার জেরে এলাকায় নেমে এসেছে শোকের ছায়া৷

সদ্য সমাপ্ত পঞ্চায়েত নির্বাচনে সিপিএমকে পরাজিত করে লক্ষ্মীসাগর গ্রাম পঞ্চায়েতটি দখল করেছে তৃণমূল। একই সঙ্গে সিমলাপাল পঞ্চায়েত সমিতি ও বাঁকুড়া জেলা পরিষদেও অভাবনীয় সাফল্য পেয়েছে শাসক দল। দলের বিপুল সাফল্যে রবিবার হরিন্যাগুড়ি গ্রামে বিজয় মিছিলের আয়োজন করা হয়। এলাকার দীর্ঘদিনের তৃণমূল কর্মী হিসেবে পরিচিত বদন গুলিও মিছিলে যোগ দেন। গ্রামে মিছিল চলাকালীনই তিনি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান।

এদিন বদন গুলির মৃতদেহ তৃণমূলের দলীয় পতাকায় ঢেকে দেওয়া হয়। মৃতদেহে মালা দিয়ে শেষ শ্রদ্ধা জানান তৃণমূলের সিমলাপাল ব্লক সভাপতি সনৎ দাস, জেলা কোর কমিটির সদস্য ও জেলা পরিষদে সদ্য জয়ী সদস্য রামানুজ সিংহমহাপাত্র সহ দলের কর্মী সমর্থকরা। তৃণমূল নেতা রামানুজ সিংহমহাপাত্র বলেন, বদন গুলি তৃণমূলের একজন সক্রিয় কর্মী ছিলেন। সিপিএমকে ভোটে হারিয়ে লক্ষ্মীসাগর গ্রাম পঞ্চায়েতে জেতার পিছনে তাঁর যথেষ্ট অবদান ছিল৷