কয়েক বছরের মধ্যেই আসতে পারে শক্তিশালী যুদ্ধ ট্যাংক: সেনাপ্রধান

নয়াদিল্লি: পাকিস্তান এবং চিনকে যোগ্য জবাব দিতে গেলে সীমান্তে যুদ্ধ ট্যাংকগুলিকে যে আরও শক্তিশালী হতে হবে সে কথাই যেন ফের একবার স্পষ্ট করে জানালেন ভারতীয় সেনাপ্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত৷ তাঁর মতে, ধীরে ধীরে অনেক পরিবর্তন চোখে পড়ছে, আর সেই পরিবর্তিত পরিস্থিতির সঙ্গে জুঝতে গেলে, ভবিষ্যতে যুদ্ধ পরিস্থিতির মোকাবিলায় নিজেদের প্রস্তুত থাকতে হবে৷

জেনারেল বিপিন রাওয়াত জানান, পশ্চিমের সঙ্গে সঙ্গে উত্তরেও যুদ্ধ ট্যাংকগুলিকে আরও উন্নত হতে হবে৷ ‘Future Armoured Vehicles India 2017’-এর সেমিনারে তিনি এ সংক্রান্ত বক্তব্য পেশ করেন৷

আরও পড়ুন: সীমান্তে ভারতের এই চরম ব্যবস্থায় একেবারে ঝলসে যাবে পাকিস্তান!

- Advertisement -

সেনাপ্রধান জানান, মরুভূমি এক্ষেত্রে চ্যালেঞ্জের মুখে ফেলছে৷ খাল কেটে শস্যশ্যামলা করে তোলা হয়েছে অনেকাংশে৷ তাই ক্রমশ জনসংখ্যাও বাড়ছে ক্রমশ৷ যুদ্ধক্ষেত্র ক্রমশই জটিল থেকে জটিলতর হয়ে উঠছে, তাই সামরিক ক্ষেত্রের আরও উন্নতি প্রয়োজন৷

জেনারেল রাওয়াত জানান, ভবিষ্যতে যে অস্ত্রই ব্যবহার করা হোক তা যেন পশ্চিমের সঙ্গে সঙ্গে উত্তরেও সমানভাবে কাজ করতে পারে সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে৷ উল্লেখ্য, সেনাবাহিনী ২০২৫-২৭ সালের মধ্যে আধুনিক ট্যাংক এবং Infantry Combat Vehicle (ICVs) নিয়ে আসার ক্ষেত্রেও চিন্তাভাবনা করছে৷

আরও পড়ুন: ভারতের সঙ্গে জোট বেঁধে মাল্টি টাস্ক হেলিকপ্টার বানাবে রাশিয়া

রাওয়াতের মতে, কোনওধরনের ভুল-ভ্রান্তি করলে চলবে না৷ সেনাবাহিনীর চাহিদা, তাদের শক্তি কতটা, কতটা কাজ বাস্তবে তারা করতে পারবে, এইসব কিছুর ওপর বিচার বিবেচনা করে তবেই এগোনো উচিত বলে মনে করেন তিনি৷ রাত-দিন কাজ করার মতো ক্ষমতাও চাই৷ সেই সঙ্গে সেনাদের প্রয়োজনীয়তার দিকেও নজর দিতে হবে বলে জানান সেনাপ্রধান৷

Advertisement ---
-----