স্টাফ রিপোর্টার, হাওড়া: বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের জেরেই আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছিলেন এক তরুণী৷ হাওড়ার বালি-দক্ষিণেশ্বর কানেক্টর ব্রিজের ঘটনা৷

পুলিশ সূত্রে খবর, এন্টালি পদ্মপুকুর এলাকার বাসিন্দা ওই তরুণী সোমবার বালি ব্রিজ থেকে গঙ্গায় ঝাঁপ দেওয়ার চেষ্টা করছিল। কিন্তু ব্রিজে থাকা পথচারীদের নজরে পড়লে ওই তরুণীকে তাঁরা ধরে ফেলেন৷ যাতে আর কোনও এমন পদক্ষেপ না নেয় তাই ওই পথচারীরা স্থানীয় বালি থানায় খবর দেয়৷ পুলিশ এসে ওই তরুণীকে উদ্ধার করে। সঙ্গে ওই তরুণীর মোবাইল ফোন থেকে তাঁর স্বামীর নম্বর নেওয়া হয়৷

ওই তরুণীর স্বামী রাকেশ নস্কর৷ পেশায় ব্যবসায়ী৷ কিন্তু বিগত কিছুদিন ধরেই অন্য এক যুবকের সঙ্গে ওই তরুণীর সম্পর্ক গড়ে উঠেছিল৷ ওই যুবকের নাম শেখ শাহেনশা৷ বিস্তারিত জানার পর পুলিশ ওই তরুণীর স্বামী ও ওই যুবককে ফোন করে বালি থানায় ডেকে পাঠায়৷

পুলিশের কাছে শেখ শাহেনশা জানান, ওই তরুণী একটি ম্যাসেজ পার্লারে কাজ করতেন৷ সেখানেই পরিচয় হয় তাঁর সঙ্গে। প্রায় দেড় বছর ধরে দু’জনের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক রয়েছে। যদিও এই প্রসঙ্গে তরুণীর স্বামী রাকেশ নস্কর জানান, এই বিষয়টি তিনি জানেন না। তাঁর স্ত্রী একটি বিউটি পার্লারে কাজ করেন বলেই তিনি জানতেন। তবে ম্যাসেজ পার্লারের বিষয়টি তাঁর অজানা।

প্রসঙ্গত, সোমবার সকালে প্রাতভ্রমণ করতে বেরোনোর নাম করে ওই তরুণী বালি ব্রিজে আসেন৷ সেখানে তিনি ব্রিজের রেলিং এর উপরে উঠে গঙ্গায় ঝাঁপ দিতে গেলে ব্রিজ দিয়ে যাওয়া পথচারীরা তাঁকে ধরে ফেলেন। জোর করে রেলিং থেকে নামিয়ে আনেন ওই তরুণীকে। পরে তারাই খবর দেন বালি থানায়। সেখান থেকে পুলিশ এসে ওই তরুণীকে উদ্ধার করে নিয়ে যায় বালি থানায়। এই মুহূর্তে ওই তরুণী বালি থানা হেফাজতে রয়েছেন বলে জানা গিয়েছে। ইতিমধ্যেই গোটা ঘটনাটির তদন্ত শুরু করছে বালি থানার পুলিশ।