নয়াদিল্লি: সারা মাসের প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র কিনেও একজন মধ্যবিত্ত ভারতীয়ের ৩২০টাকা প্রতি মাসে সাশ্রয় হবে বলে অর্থমন্ত্রক সূত্রে জানানো হয়েছে৷ উপভোক্তাদের ব্যয়ের তথ্যের ভিত্তিতে অ্যানালিসিস করা হয় এবং তার নিরিখেই অর্থমন্ত্রক সূত্রে জিএসটি-র সুফলের কথা জানানো হয়৷

উল্লেখ্য, ২০১৭ সালের ১ জুলাই দেশে গুডস্ অ্যান্ড সার্ভিসেস ট্যাক্স (GST) লাগু করে সরকার৷ যার ফলে কেন্দ্র এবং রাজ্যে ১৭ টি পৃথক কর জিএসটির আওতায় চলে আসে৷ ভারতকে এক ছাতার তলায় আনার পাশাপাশি ‘tax-on-tax’ সমস্যারও সমাধান করে৷

সেই সঙ্গে বিভিন্ন দ্রব্যের মূল্য হ্রাস পাওয়ায় গ্রাহকদের মাসিক খরচও কমেছে বলে দাবি করা হয়েছে৷

পড়ুন: ১৮ লক্ষ সরকারি কর্মচারীর জন্যে বড় উপহার ঘোষণা মোদীর

জিএসটি লাগু হওয়ার আগে এবং লাগু হওয়ার পরে বেশ কিছু পরিবারের ব্যয় বিশ্লেষণ করে দেখা গিয়েছে, খাদ্য এবং পানীয় সহ হেয়ার অয়েল, টুথপেস্ট,সাবান, ওয়াশিং পাউডার, জুতোর মতো মোট ৮৩টি জিনিসে কর কমেছে৷

পড়ুন: ‘মোদী ম্যাজিকে’ বন্ধ রফতানি, প্রভাব পড়ছে অর্থনীতিতে

সূত্র মতে, মাসিক খরচ যদি ৮,৪০০টাকা হয়, সেই হিসেবে জিএসটি-র হিসেবে ৫১০টাকার কর হয়৷ কিন্তু জিএসটি-র লাগু হওয়ার আগে তা ছিল ৮৩০টাকা৷ অর্থাৎ বর্তমান ব্যবস্থায় গ্রাহকের প্রায় ৩২০টাকা সাশ্রয় হচ্ছে৷

পড়ুন: বিমা পলিসি হোল্ডারদের জন্য দারুণ খবর