যুদ্ধ পরিস্থিতি? জলে যুদ্ধজাহাজ-আকাশে ফাইটার জেট সাজাল বাংলাদেশ

ঢাকাঃ  বাংলাদেশ-মায়ানমার সীমান্তে ক্রমশ তৈরি হচ্ছে জটিলতা। গত কয়েকদিন ধরে লাগাতার বাংলাদেশের আকাশসীমা লঙ্ঘন করেছে মায়ানমার এয়ারফোর্সের একটি সামরিক হেলিকপ্টার। এরপরেই বাংলাদেশের তরফে পালটা ঘুঁটি সাজানো হচ্ছে।

পড়ুন আরও- ‘ভারতের এই মিসাইল দেখলে হিংসায় জ্বলবে গোটা বিশ্ব’

বিভিন্ন সূত্র পাওয়া খবরের ভিত্তিতে ঢাকা ট্রিবিউন জানিয়েছে, মায়ানমার সীমান্তের কাছে চিটগাঁও এলাকাতে বাংলাদেশ এয়ারফোর্স এবং নেভির তৎপরতা দেখা গিয়েছে। সূত্রকে কোট করে ঢাকা ট্রিবিউন জানিয়েছে, মিগ-২৯ এস এবং এফ-৭ যুদ্ধবিমান মোতায়েন করা হয়েছে চট্টগ্রাম সীমান্তে। পাশাপাশি বাংলাদেশ নেভির সবথেকে শক্তিশালী যুদ্ধজাহাজ BNS Bangabandhu-ও মোতায়েন করা হয়েছে। একই সঙ্গে আরও সাত থেকে আটটি ড্রেস্ট্রোয়ারও মোতায়েন করা হয়েছে। ফলে, বাংলাদেশ-মায়ানমার সীমান্তে রীতিমত সামরিক সজ্জা সাজাচ্ছে বাংলাদেশ সামরিক বিভাগ।

পড়ুন আরও- সংঘর্ষের পরিস্থিতি? বাংলাদেশের আকাশে চক্কর কাটছে সামরিক কপ্টার

প্রসঙ্গত, বাংলাদেশের আকাশসীমা লঙ্ঘন করল মায়ানমার এয়ারফোর্স। একবার নয়, একাধিকবার বাংলাদেশের আকাশসীমা লঙ্ঘন করে সীমান্তের এপারে ঢুকে পড়ে সামরিক হেলিকপ্টার। এমনটাই অভিযোগ বাংলাদেশ সরকারের। ইতিমধ্যে এর বিরুদ্ধে তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশ সরকার। অন্যদিকে, বাংলাদেশের বিদেশ দফতর এক বিবৃতিতে জানিয়েছে ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে ইতিমধ্যে মায়ানমারকে চিঠি দেওয়া হয়েছে।

পড়ুন আরও- কর্মীদের বেতন বন্ধ করতে গিয়ে পিছু হটল ইউকো ব্যাংক

মায়ানমারের রাখাইন প্রদেশ থেকে সেনাবাহিনীর হামলার মুখে বহু রোহিঙ্গা মুসলমান পালিয়ে বাংলাদেশের পার্বত্য চট্টগ্রাম এলাকায় ঢুকছেন। তাদের উপর নজরদারি করতে গিয়ে আকাশ সীমান্ত পাড় করে বাংলাদেশের আকাশে একাধিকবার চক্কর কাটছে মায়ানমারের সামরিক কপ্টার। ঘটনায় ক্ষুব্ধ ঢাকা। ইতিমধ্যে কড়া বার্তা পাঠানো হয়েছে নেপিদ কে। গত ২৭ ও ২৮শে অগাস্ট এবং ১লা সেপ্টেম্বর মায়ানমারের হেলিকপ্টার বেশ কয়েকবার আকাশসীমা লংঘন করে বাংলাদেশের সীমানায় চলে আসে বলে জানানো হয়েছে। বাংলাদেশ সরকারের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, গতকাল শুক্রবাত উখিয়ার কাছে তিনবার মায়ানমারের হেলিকপ্টার আকাশ সীমা লংঘন করে বলে অভিযোগ।

Advertisement
----
-----