২৩বছর পর সংশোধনের পথে বর্ধমান জেলার গেজেট

সঞ্জয় কর্মকার, বর্ধমান: প্রথমবার প্রকাশিত হয়েছিল পরাধীন ভারতবর্ষে ১৯০১-১৯০৩-এর মধ্যে। আর তারপর দ্বিতীয়বার হয় ১৯৯৪ সালে। এরপর প্রায় ২৩ বছর পর বর্ধমান জেলার গেজেটের সংশোধিত ও পরিমার্জিত সংস্করণ প্রকাশিত হতে চলেছে। বৃহস্পতিবার এই গেজেট সংক্রান্ত বিষয়ে জেলা প্রশাসনের একটি উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। হাজির ছিলেন কলকাতার কয়েকজন বিশেষজ্ঞ, বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধিসহ পূর্ব বর্ধমান জেলার সমস্ত দফরের আধিকারিকরাও।

আরও পড়ুন: ভাঙা-গড়ার ২২৪ বছরে ক্রমহাসমান বর্ধমানের ইতিবৃত্ত

জেলাশাসক অনুরাগ শ্রীবাস্তব জানিয়েছেন, গেজেটে সেই জেলার সম্পূর্ণ বিষয়ের সর্বশেষ সংস্করণ থাকে। কিন্তু দীর্ঘদিন বর্ধমানের গেজেটের কোনও সংশোধন বা পরিমার্জিত সংস্করণ হয়নি। আর তাই এব্যাপারে একটি উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। তিনি জানিয়েছেন, এব্যাপারে সহযোগিতা করছেন বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। এছাড়াও সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন কলকাতার কয়েকজন বিশেষজ্ঞও। তিনি জানিয়েছেন, ক্রমবর্ধমান বর্ধমান জেলার অনেক কিছুরই পরিবর্তন হয়েছে। সম্প্রতি জেলাভাগও হয়েছে। তবে এই গেজেটে দুটি জেলা তথা পূর্ব ও পশ্চিম বর্ধমান জেলার সমস্ত তথ্যই থাকবে। তিনি আরও জানান, এদিনের বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে চলতি বছরের মধ্যেই নয়া সংস্করণের এই বর্ধমান গেজেটকে তাঁরা প্রকাশিত করা হবে।

- Advertisement -

উল্লেখ্য, প্রায় বছর চার আগেও এব্যাপারে একটি উদ্যোগ নেওয়া হলেও তা মাঝপথেই থেমে যায়। ফের বর্ধমানের জেলাশাসকের উদ্যোগে এই বিষয়টি নিয়ে রীতিমত কোমড় বেঁধেই নেমেছে জেলা প্রশাসন।

Advertisement ---
---
-----