বেজিং: বিশ্বের সবথেকে বড় রেডিও টেলিস্কোপে ফিনিশিং টাচ দিচ্ছে চিন। আর তাতেই বোধহয় খুঁজে পাওয়া যাবে ভিনগ্রহী। নাসা যখন পৃথিবী সদৃশ ‘Earth 2.0’ খুঁজে পাওয়ার আনন্দে মেতে রয়েছে। তার মধ্যেই এই বৃহত্তম টেলিস্কোপ শেষের পথে বলে ঘোষণা করল চিন। ৩০ টি ফুটবল মাঠের সমান সাইজের হবে এই টেলিস্কোপ।

মহাকাশ গবেষকরা জানিয়েছেন, ৫০ মিটার ব্যাস জুড়ে রয়েছে এই টেলিস্কোপের রিফ্লেক্টর। রয়েছে ৪,৪৫০ টি প্যানেল। টেলিস্কোপের নাম দেওয়া হয়েছে ‘FAST’. এর আগে পূয়ের্তো রিকো অবজারভেটরি ছিল সবথেকে বড় টেলিস্কোপ।

Advertisement

জানা গিয়েছে, এই টেলিস্কোপের একটি সেনসিটিভ কান আছে। মহাজাগতিক শব্দও শুনতে পাবে এটি। এই টেলিস্কোপ চিনের মহাকাশ গবেষণায় যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নেবে বলে মনে করছেন গবেষকরা। অনেক দূরের রেডিও মেসেজও পৌঁছে যাবে এই টেলিস্কোপের মাধ্যমে। আমাদের গ্যালাক্সির বাইরেও প্রাণের সন্ধান চালাতে এই টেলিস্কোপ কাজ করবে বলে অনুমান করা হচ্ছে।

এই টেলিস্কোপটির চারপাশে একবার হেঁটে আসতে সময় লাগবে ৪০ মিনিট। চিনের দক্ষিণে একটি উপত্যকায় তৈরি করা হচ্ছে এই টেলিস্কোপ। আশেপাশে নেই কোনও শহর বা মানুষের বসতি। ফলে আওয়াজ আসে না। জল নিকাশ করার যে ব্যবস্থা রয়েছে তাতে রিফ্লেক্টরের কোনও ক্ষতি হবে না। ২০১১ সালে এই টেলিস্কোপ তৈরি করা শুরু হয়। আগামী বছরে এটি শেষ হবে বলে জনা গিয়েছে।

----
--