টিফিনের খরচ বাঁচিয়ে কেরলের পাশে খুদে পড়ুয়ারা

ফাইল ছবি

স্টাফ রিপোর্টার, তমলুক: ভাসছে কেরল৷ চিন্তিত গোটা দেশ৷ সকলেই বাড়িয়ে দিচ্ছেন সাহায্যের হাত৷ সেই দলে যোগ দিল পূর্ব মেদিনীপুরের কাঁথির একদল পড়ুয়া৷

তারা প্রত্যেকেই স্থানীয় পেটুয়া প্রাথমিক ও জুনিয়র হাইস্কুলে পড়ে৷ কেরলে বন্যাত্রাণের জন্য অর্থ পাঠাতে তারা দান করল নিজেদের টিফিনের টাকা৷ পাশাপাশি সাধারণ মানুষের কাছ থেকেও তারা সংগ্রহ করল অর্থ৷

আরও পড়ুন: চুলপড়া থামাতে ব্যবহার করুন পেঁয়াজের রস

- Advertisement -

সোমবার ওই পড়ুয়ারা পেটুয়া বন্দর থেকে স্থানীয় এলাকায় ঘোরে৷ প্রতিটি মানুষের কাছে অর্থ চায়৷ খুদে ছাত্রছাত্রীদের এই মানবিক উদ্যোগ দেখে খুশি এলাকার মানুষ৷ তাঁরাও তাই কেরলের জন্য করতে পিছিয়ে থাকেননি৷ যে যেমন পেরেছেন, ওই খুদে পড়ুয়াদের কৌটোতে দিয়ে দিয়েছেন৷

ছাত্রছাত্রীরা জানিয়েছে, টিভিতে কেরলের বন্যার খবর দেখে তাদের খারাপ লেগেছে৷ তাই তারা টাকা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়৷ প্রথমে টিফিনের খরচ বাঁচিয়ে অর্থ জমা করে৷ পড়ুয়াদের এই সিদ্ধান্তের কথা জানতে পেরে এগিয়ে আসেন শিক্ষকরাও৷ মূলত তাঁদের প্রচেষ্টাতেই সোমবার ছাত্রছাত্রীরা পথে নেমেছিল৷

আরও পড়ুন: চাকরির নতুন দিশা দেখাচ্ছে হলদিয়া সিপেট কলেজ

পেটুয়া প্রাথমিক স্কুলের প্রধান শিক্ষক অনুকূল বেরা বলেন, ‘‘ছাত্ররাই উদ্যোগী হয়ে বন্যা ত্রাণ সংগ্রহ করছে। আমরাও কিছু সাহায্য করেছি। সংগৃহীত ৮ হাজার টাকা আমরা মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে জমাও করে দিয়েছি।’’

আরও পড়ুন: এবার তেলুগু ভাষায় ‘পিউপা’

Advertisement
-----