কমনওয়েলথ গেমসে ভারতের সোনা-রুপো

গোল্ড কোস্ট: ২১তম কমনওয়েলথ গেমসের প্রথম দিনে ভারোত্তোলনে ভারতের জয়জয়কার৷দেশকে প্রথম পদক এনে দিলেন পি গুরুরাজ৷পুরুষদের ৫৬ কেজি বিভাগে রুপো জেতেন কর্নাটকি৷তবে তাঁকে ছাপিয়ে গিয়ে গোল্ড কোস্টে ভারতকে প্রথম সোনা এনে দিলেন মিরাবাই চানু৷মহিলাদের ৪৮ কেজি বিভাগে সোনা জিতলেন বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন চানু৷ ৮৬ কেজি স্ন্যাচ ও ১১০ কেজি ক্লিন অ্যান্ড জার্কে মোট ১৯৬ কেজি ওজন তুলে সোনা জেতেন মণিপুরী কন্যা৷

গোল্ড কোস্টে ভারতের হয়ে প্রথম একটি পদক জেতেন গুরুরাজ৷ ১১১ কেজি স্ন্যাচ ও ১৩৮ কেজি ক্লিন অ্যান্ড জার্ক মিলে মোট ২৪৯ কেজি ভার তোলেন কর্নাটকের বছর আঠাশের ভারোত্তোলক৷ এটি গুরুরাজের ব্যাক্তিগত সর্বোচ্চ স্কোর৷

আরও পড়ুন: নিজেকে অর্জুন পুরস্কারের দাবিদার মানছেন চানু

কর্নাটকের পিকাপভ্যান চালকের ছেলে গুরুরাজ কুস্তি দিয়েই খেলোয়াড় জীবন শুরু করেছিলেন৷পরে ভারোত্তোলনে আসেন পেশায় এয়ার ইন্ডিয়ার এই কর্মী৷ ২০১৬ দক্ষিণ এশিয়ান গেমসে সোনা জিতেছিলেন কর্নাটকের এই ভারোত্তোলক৷ গোল্ড কোস্টে ২৪৯ কেজি ভার উত্তোলন করে রুপো জেতেন গুরুরাজ৷ ইভেন্টিতে ২৬১ কেজি তুলে সোনা জিতলেন মালেশিয়ার মুহাম্মদ আজহার আহমেদ৷ গুরুর থেকে ১ কেজি কম ভার তুলে ব্রোঞ্জ জেতেন শ্রীলঙ্কার চতুরঙ্গ লকমল৷

আরও পড়ুন: আসল পরীক্ষা এশিয়ান গেমস: চানু

গত নভেম্বরে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের আনাহিমে ৪৮ কেজি বিভাগে সোনা জিতেছিলেন মণিপুরে ২৩ বছরের চানু৷ ৮৫ কেজি স্ন্যাচের পর ১০৯ কেজি জার্ক করে মোট তিনি ১৯৪ কেজি ভারোত্তোলন করেছিলেন তিনি৷ গোল্ড কোস্টে নিজের পুরনো রেকর্ড ভেঙে ব্যাক্তিগত সর্বোচ্চ ১৯৬ কেজি ভার তোলেন মনিপুরের মেয়ে৷ চানুর থেকে অনেকটা পেছনে থেকে ১৭০ কেজি ওজন উঠিয়ে রুপো জিতলেন মৌরিটিজের ভারোত্তোলক মারিয়া রানাইভোসোয়া৷

কমনওয়েলথে তার এই সাফল্যে অভিনন্দন জানিয়েছেন মণিপুরের আর এক সোনার মেয়ে বক্সার মেরি কম৷ টুইটে তিনি লেখেন , ‘ ২০১৮ কমনওয়েলথ গেমসে সোনা জয়ের জন্য তোমাকে অভিনন্দন চানু৷ গর্বের মুহূর্ত৷’

Advertisement
---
-----