দেবের “ইয়ে দোস্তি হম নাহি তোড়েঙ্গে” ভার্সান দেখেছেন?

কলকাতা: ‘শোলে’র সেই আইকনিক গান৷ যা আজও বন্ধুত্বের মিশেল তৈরি করে৷ সেই আইকনিক গানই রিক্রিয়েট করলেন দেব এবং তাঁর বন্ধুরা৷ তাঁর রিলের বন্ধুরা এখন রিয়েল বন্ধুও বটে৷ শাশ্বত এবং অর্ণকে নিয়েই গান ধরেছেন দেব৷ ধর্মেন্দ্র-অমিতাভের সঙ্গী ছিল সেই স্কুটার আর দেব এবং তাঁর বন্ধুদের সঙ্গী হল উজবেকিস্তানের ট্যাক্সি৷ সেই ক্যাবের জানলা থেকে অর্ধেক শরীর বের করে ইয়ে দোস্তি গেয়ে চলেছেন তাঁরা৷ সেই ভিডিওই এখন সোশ্যাল মিডিয়ার আনাচে কানাচে৷

ভিডিওটি আসলে ‘সুজন মাঝি রে’র বিহাইন্ড দ্য সিনস৷ গানটি শ্যুট করতে গিয়ে কতটা ধকল হয়েছে তাও জানালেন তাঁরা৷ অর্ণর কথায়, “বেগুনপোড়ার যে রঙ হয়, সেই রঙ এখন আমাদের গায়ে চলে এসেছে৷” গানটা শ্যুট করার সময় বেশ গরম ছিল৷ যদিও গানে তাঁদের ধকল একেবারেই চোখে পড়েনি৷ ট্র্যাকটি মুক্তি পেতেই দু-দিনে ভিউজ ছাড়িয়েছে এক মিলিয়ন৷ এক দিনে এত ভিউজ এর আগে কখনও কোনও বাংলা ছবির গানে হয়েছে কিনা সন্দেহ৷

ডিজিটাল দুনিয়ায় দেবের গুণগানের অন্ত নেই৷ কিন্তু রাস্তাঘাটে আমার আপনার পাশেও রয়েছে দেবের ডাই গার্ড ফ্যান৷ তারা কতটা ‘হইচই’ করছেন ছবির নতুন গান নিয়ে৷ সেই কথাই ভক্তরা জানাচ্ছেন দেবকে৷ আর সে সুযোগ করে দিয়েছেন দেব নিজেই৷ রাস্তায় নেমে চিৎকার করে সকলে গেয়ে শোনাচ্ছেন ‘সুজন মাঝি রে’৷ আর সেই গানের ভিডিও আপনাকে পৌঁছে যাচ্ছে দেবের কাছে৷ দেব ভিডিও নিজের ট্যুইটার হ্যান্ডেলে শেয়ারও করছেন৷

- Advertisement -

ট্র্যাকটির ইউনিক লিরিকস এখন রীতিমত ভাইরাল৷ ক্রেডিট একমাত্র রাজা চন্দের৷ কারণ গানটির লিরিকস লিখেছেন রাজা চন্দ৷ ছবির যেমন নাম তেমন কাম। একের পর এক বোমা ফাটাচ্ছেন দেব। প্রথমে ছবির ডেস্টিনেশন উজবেকিস্তান, সঙ্গে একঝাঁক তারকা, গায়ক মিকা সিং। আর এবার বং কানেকশনের সুপারহিট গান ‘সুজন মাঝি রে’ রিমেক। সব মিলিয়ে চারিদিকে হইচই ফেলে দিয়েছেন সুপারস্টার। ট্র্যাকটি মুক্তি পেতেই চারিদিকে সেলিব্রেশনে মেজাজ৷ একেই ‘হইচই আনলিমিটেড’ পুজো রিলিজ, তার ওপর দেবের ছবি মানে সারা বছরই সেলিব্রেশনের মুড৷

গানটি সকলের জন্য আ মাস্ট ওয়াচ৷ কেন? প্রথমত, উজবেকিস্তানের এক্সজটিক লোকেশন৷ দ্বিতীয়ত, ‘দ্য বয়জ গ্যাং’, দেব-শাশ্বত-খরাজ-অর্ণ৷ তিন জেনরেশনের হিরো, এদিকে তাঁদের বন্ডিং একেবারে জিগরি দোস্তের মতো৷ তৃতীয়ত, ট্র্যাকের লিরিকস৷ ভাটিয়ালি ফোক গানও যে এভাবে পার্টি অ্যান্থেম বানানো যায় তা দেখিয়ে দিলেন ছবির সঙ্গীত পরিচালক স্যাভি৷ এখনও যদি গানটা না দেখে থাকেন, তাহলে আর সময় না নষ্ট করে দেখে ফেলুন৷ হলপ করে বলা যায়, মন ভালো করা এই ট্র্যাক আপনার মিউজিক গ্যালারির হিটলিস্টে চলে আসবেই৷

Advertisement ---
---
-----