বিয়ে করার ইচ্ছে নেই দিলীপ ঘোষের

কলকাতা: বয়স ৫৩ ছুঁয়েছে। এই মুহূর্তে রাজ্যে বিরোধীদের মধ্যে সবচেয়ে শক্তিশালী চরিত্র বিজেপি-র রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। শৈশবেই আরএসএস-এ যোগ দিয়েছিলেন। সংঘের প্রচারক হিসেবে আন্দামান নিকোবরে কাটিয়েছেন অনেকটা সময়। তারপর বিজেপির হাত ধরে বাংলারা রাজনীতিতে প্রবেশ। এসবের মাঝে কখনও বিয়ে করার কথা মনে হয়নি? এই প্রশ্নের উত্তরে অকপটে জানালেন। বিয়ে করার ইচ্ছে নেই।

আরও পড়ুন: রাতের অন্ধকারে দিলীপ ঘোষের উপর দুষ্কৃতী হামলা

বিজেপির রাজ্য সভাপতি হয়ে দায়িত্ব অনেকটাই বেড়েছে। সামনেই গণতন্ত্রের সবচেয়ে বড় কুরুক্ষেত্র। হয়তো নিজের মতো করে তার জন্য ঘুঁটিও সাজাচ্ছেন। এরই মাঝে বাংলার এক টিভি চ্যানেলকে সাক্ষাৎকার দেওয়ার সময় কিছুটা মজার ছলেই বিজেপির রাজ্য সভাপতিকে প্রশ্ন করেন সঞ্চালক, “আর কি বিয়ে করবেন না?”

- Advertisement DFP -

প্রশ্ন শুনে কয়েক সেকেন্ডের মৌনতা। তারপরই বললেন, “বিয়ে করার ইচ্ছে হয়নি কোনদিন কারণ তারচেয়ে বড় কাজ করছি আমি। দেখুন বিয়ে একটি সামাজিক দায়িত্ব। যোগ্য সন্তান সমাজকে দেওয়া আমাদের কর্তব্য। আমি অন্যভাবে নিজের দায়িত্ব পালন করছি। অন্যের সন্তানকে পালন করে তাকে দেশের উপযুক্ত গড়ে তোলাটাও গুরুত্বপূর্ণ।’’

আরও পড়ুন: দিলীপ ঘোষের মন্তব্যে বাংলা ভেঙে দেওয়ার ইঙ্গিত: আবুল বাশার

এরপরই পাকিস্তার প্রাক্তন ক্রিকেটার এবং বর্তমানে প্রধানমন্ত্রী পদের সবচেয়ে বড় দাবিদার ইমরান খানের তিনটি বিয়ের প্রসঙ্গ এলে বিজেপির রাজ্য সভাপতি বলেন, ‘‘প্রত্যেক মানুষের নিজের কিছু লক্ষ্য থাকে। ছোটবেলা থেকেই আমার লক্ষ্য দেশের কাজে নিজেকে নিয়োজিত করা। মোদিজী কিংবা যোগী আদিত্যনাথ কেউই সংসারে সেভাবে আবদ্ধ হননি। কারণ, এঁরা প্রত্যেকেই আরএসএস থেকে উঠে এসেছেন। আরএসএস মানেই অভিযোগ ছাড়া দেশের হয়ে কাজ করা৷’’

আরও পড়ুন: দিলীপ ঘোষকে রাজ্য সভাপতি পদ থেকে সরাতে তৎপর একাংশ নেতৃত্ব

আরও পড়ুন: ‘দিলীপ ঘোষই রাজ্যের পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রী’

আরএসএস প্রচারক এবং বিজেপির রাজ্য সভাপতি দু’জায়গাতেই নিজের সাবলীলতা প্রমাণ করেছেন দিলীপ ঘোষ। স্পষ্টই জানালেন, ‘‘আমি ভেতরে আরএসএস, বাইরে বিজেপি।’’ তবে সাক্ষাতকার শুধু বিয়ে কিংবা আরএসএস-এ আটকে থাকেনি। বিফ খাওয়া নাকি না খাওয়া কোন পক্ষে ব্যক্তি দিলীপ ঘোষ। প্রশ্নের উত্তরে দুঁদে রাজনৈতিক নেতাদের মতই দিলীপ বলেন, ‘‘খাওয়াটা নিজের ইচ্ছে মতই হওয়া উচিৎ। পাশাপাশি একটি দেশের সংখ্যাগরিষ্ঠরা কী চান সেটাও খেয়াল রাখতে হবে।’’

আরও পড়ুন: দিলীপ ঘোষকে জলে দাঁড় করিয়ে রাখার হুশিয়ারি মমতার মন্ত্রীর

Advertisement
----
-----