জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণে সহিষ্ণুতার বার্তা রাষ্ট্রপতির

নয়াদিল্লি: স্বাধীনতা দিবসের আগে জাতির উদ্দেশ্য ভাষণ দিতে গিয়ে টানলেন গাঁধীর জীবনদর্শন এবং সহিষ্ণুতার বার্তা দিলেন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ। তাঁর বক্তব্যে উঠে এসেছে অহিংসার কথা। তিনি বলেছেন, গান্ধীর দেশে হিংসার কোনও স্থান নেই। বিদ্বেষপূর্ণ সমস্যার জেরে দেশ তার মূল উদ্দেশ্য থেকে বিক্ষিপ্ত হয়ে যাচ্ছে৷ তিনি জানান, দেশ এই মূহুর্তে এমন এক সন্ধিক্ষণে রয়েছে যা অন্য সময়ের থেকে আলাদা কারণ বেশ কিছু দীর্ঘ-প্রতীক্ষিত লক্ষ্য অর্জনের পথে এখন দেশ৷ সকলের জন্য বিদ্যুতের ব্যবস্থা , দারিদ্র ও গৃহহীনতা দূর করার পথে এখন দেশ৷

আরও পড়ুন: মেডিক্যালের চিকিৎসকের ‘ভুল’, শিশুর বাঁ পায়ের বদলে ডান পায়ে অস্ত্রোপচার

মঙ্গলবার দূরদর্শনের মাধ্যমে রাষ্ট্রপতি দেশবাসীকে স্বাধীনতা দিবসের আগাম শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। কোবিন্দ মনে করিয়ে দেন, তেরঙ্গা হল গর্বের প্রতীক এবং পরিচয়। বহু স্বাধীনতা সংগ্রামীর মৃত্যুর ফসল হল আজকের স্বাধীনতা। ভবিষ্যতে দেশবাসী যাতে শান্তিতে থাকতে পারে, তারজন্যই বিপ্লবীরা তখন আত্মবলিদান দিয়েছিলেন। তাঁরা চেয়েছিলেন ভারত স্বাধীন ও সার্বভৌম হোক এবং সকলে মিলেমিশে ভাইয়ের মতো থাকে যেন। এই দিনটি ভারতবাসীর জন্য একটি পবিত্র দিন৷

- Advertisement -

আরও পড়ুন: সরকারি চাকরি খুঁজছেন? রইল হদিশ

রাষ্ট্রপতির ভাষণে উঠে এসেছে গান্ধীর প্রসঙ্গ কারণ তিনি জানান, হিংসার চেয়ে অহিংসা অবেক শক্তিশালী। তিনি স্বাধীনতাকে আরও বৃহত্তর অর্থে দেখতে চান৷ সীমান্তে পাহারা দিচ্ছে যেসব সেনা থেকে একেবারে গৃহবধূ যিনি তাঁর পরিবারকে দাঁড় করাচ্ছেন অথবা শ্রমিকরা যারা আন্তরিকভাবে তাদের কাজটি সম্পাদনা করছেন নিজস্ব ভাবে স্বাধীনতার মূল্যবোধকে সমর্থন করে।

Advertisement ---
---
-----