মুম্বই : খরস্রোতা বন্যার জল৷ নদীর মতো প্লাবিত হয়ে বিপদ সীমার ওপর দিয়ে বইছে৷ তারই মাঝে কোনও ভাবে আটকে গিয়েছিল গাড়িটি৷ আর তাতে আটকে পড়েছিল পরিবারটি৷ কোনও মতে গাড়ির চালে বসেছিলেন পুরুষ ও মহিলা৷ কোনও ক্রমে প্রাণ বাঁচিয়ে৷

নভি মুম্বইয়ের তালোজা এলাকার এই ছবি এখন নেট দুনিয়ায় রীতিমতো ভাইরাল৷ শুধু তাই নয়৷ একটি ভিডিও প্রকাশিত হয়েছে৷ সেখানে দেখা যাচ্ছে কীভাবে স্থানীয় বাসিন্দারা দড়ির সাহায্যে ওই দুজনকে উদ্ধার করছে৷

গাড়িটিতে মোট ৪ জন যাত্রী ছিলেন৷ তারা প্রত্যেকেই প্রাণ বাঁচাতে গাড়ির মাথায় চেপে বসেন৷

ঠিক সময়ে তাদের উদ্ধার করা না গেলে বড়সড় দুর্ঘটনা ঘটে যেত পারত৷ তলিয়ে যেতে পারতেন বা জলের স্রোতে ভেসে যেতে পারত ওই পরিবার৷ কিন্তু রক্ষাকর্তা হিসেবে দেখা দেয় স্থানীয় মানুষ৷

দড়ি বেঁধে কোনও রকমে জলের স্রোত ঠেলে ওই গাড়ির কাছে পৌঁছন জনাকয়েক স্থানীয় বাসিন্দা৷ একে একে নামিয়ে আনা হয় আটকে পড়া যাত্রীদের৷ প্রথমে মহিলাদের, পরে পুরুষদের উদ্ধার করা হয়৷ আশ্চর্যজনক ভাবে, সবাই নিরাপদে পাড়ে পৌঁছনোর পরেই গাড়িটি জলের স্রোতে তলিয়ে যায়৷ তার আর কোনও হদিশ পাওয়া যায়নি৷

এরই মধ্যে অবিরাম বৃষ্টিতে ভাসছে মুম্বই। সোমবার রাতভর বৃষ্টির পর, মঙ্গলবার ফের মুষলধারায় বৃষ্টি শুরু হয়েছে মুম্বই এবং পাশ্ববর্তী এলাকায়। রেললাইন, সড়কপথ সবই জলমগ্ন। মুম্বইয়ের পারেল, ধারাভি, মাতুঙ্গা, কিংস সার্কেল, রায়গড়, পালঘর, থানে, ডোম্বিভালি, কল্যাণ, অম্বেরনাথ, ভিরার, ভাসি–‌সহ বিভিন্ন এলাকায় প্রায় বন্যা পরিস্থিতি।

ঘোড়বন্দর সড়ক, ওয়াগলে এস্টেট, কুরলা, বিদ্যাবিহার, আন্ধেরি, দাদর, মালাড, যোগেশ্বরী এবং সিওনের মতো নিচু এলাকা জলমগ্ন। কুরলা স্টেশনের ফুট ওভারব্রিজেও জমে গিয়েছে জল। নাল্লাসোপার স্টেশনে আপ লাইনের জলস্তর ১৮০ মিলিমিটার ছুঁয়েছে। যা রেললাইনের নির্দিষ্টি জলস্তরের থেকে বেশি। তার ফলে আপ লাইনে ট্রেন চলাচল বন্ধ।

এখন মাত্র তিনটি ট্র‌্যাক দিয়ে প্রায় ১৫–২০ মিনিট দেরিতে চলাচল করছে ট্রেনগুলি। ট্রেনের গতিও নির্দিষ্ট করা হয়েছে। তবে এই শাখার অন্যান্য লাইনে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক, একথা জানিয়েছে পশ্চিম রেল।

জলে ডুবেছে মুম্বই বিমানবন্দরের রানওয়ে। বৃষ্টির জেরে দৃশ্যমানতা কমে গেলেও, নির্ধারিত সূচি মেনেই বিমান চলাচল করছে। অসামরিক পরিবহণ মন্ত্রকের নির্দেশ মেনে জেট এয়ারওয়েজ উড়ানে সমস্যার জন্য যাত্রীদের ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছে। বৃষ্টিতে বাণিজ্যনগরীর পরিবহণ পরিষেবা বিঘ্নিত হয়েছে।

----
--