‘দক্ষতার তুলনায় নিম্ন স্তরের কাজ করতে বাধ্য হচ্ছে দেশের যুবকেরা’

নয়াদিল্লি: বেকারত্বের জেরে এদেশে অনেক কর্মীই এখন তাঁর নিজের দক্ষতার তুলনায় অনেক নিচু মানের কাজ করতে বাধ্য হচ্ছেন। গত তিন বছরের উন্নয়ন কর্মসূচি পেশ করে এমন মন্তব্য করেছে নীতি আয়োগ।

নীতি আয়োগ তার রিপোর্টে জানিয়েছে, সাধারণ অভিযোগ হল ভারত বৃদ্ধির পথে হাঁটলেও কর্মসংস্থানে ঘাটতিই মূল সমস্যা। কিন্তু ন্যাশনাল স্যাম্পল সার্ভে অফিস (এনএসএসও)-এর সমীক্ষা ধারাবাহিক ভাবে জানাচ্ছে, গত তিন বছরেরও বেশি সময় ধরে বেকারত্বের হার বেশ কম ও স্থিতিশীল। কিন্তু আসল সমস্যা হল নিজের মানের অনেক ধাপ নীচে নেমে কর্মীদের নিচু স্তরের কাজ করতে বাধ্য হওয়া। যা আধা বেকারত্ব বলে পরিচিত৷

সমস্যা সমাধানে কিছু প্রস্তাব এনেছে নীতি আয়োগ তার রিপোর্টে। সেগুলির মধ্যে যেমন রয়েছে উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধি কিংবা উঁচু বেতনের কাজ বাড়িয়ে দক্ষতার দিকে জোর দেওয়া যাতে এই সব কর্মীরা উপযুক্ত কাজ পায় যা তাদের উপযুক্ত স্বীকৃতি দেবে৷ তাছাড়া আমদানি কমিয়ে রফতানির জন্য উৎপাদন বাড়ানো দিকে নজর দিয়ে দেশের বাজার সম্প্রসারণ করার কথাও বলা হয়েছে ৷ একই ভাবে মেক ইন ইন্ডিয়া কর্মসূচির পরের ধাপে বিশ্ব বাজারের জন্য উৎপাদন বাড়ানোয় গুরুত্বের কথা ও বলা হয়েছে৷

- Advertisement -

এ ক্ষেত্রে নীতি আয়োগ দক্ষিণ কোরিয়া, তাইওয়ান, সিঙ্গাপুর, চিনের মতো বিভিন্ন দেশের উদাহরণ তুলে ধরেছেন যারা দুনিয়া জুড়ে নিজেদের উৎপাদিত পণ্য ছড়িয়ে দিয়েছে । এই পথেই ভারতকে এগোনোর পরামর্শ দিয়েছে নীতি আয়োগ। নীতি আয়োগের পরামর্শ হল মূলত শ্রমিক নির্ভর উপকূল এলাকায় কারখানা গড়ার সুযোগ দিতে হবে এবং এজন্য ‘কোস্টাল এমপ্লয়মেন্ট জোন’ তৈরির সুপারিশ করা হয়েছে ।

Advertisement ---
---
-----