কলকাতা: প্রথম ম্যাচ বৃষ্টির জন্য পরিত্যক্ত হয়েছিল৷ তাই পুলিশের বিরুদ্ধে ম্যাচই ছিল খাতায় কলমে ইস্টবেঙ্গেলের প্রথম ম্যাচ৷  দুর্বল পুলিশের বিরুদ্ধে সেই ম্যাচে তিন পয়েন্ট নিয়ে লিগ অভিযান শুরু ইস্টবেঙ্গলের৷ সোমবার পশ্চিমবঙ্গ পুলিশকে ২-০ হারিয়ে কলকাতা প্রিমিয়র লিগে ট্রিপল হ্যাটট্রিকের লক্ষ্য নিয়ে খাতা খুলল লাল-হলুদ ব্রিগেড৷

ইস্টবেঙ্গলের হয়ে গোল দু’টি করেন লালরিনডিকা লালতে এবং কাসিম আইদারা৷ ম্যাচের প্রধমার্ধেরই জোড়া গোলে এগিয়ে যায় সুভাষ ভৌমিকের ছেলেরা৷ দ্বিতীয়ার্ধে আমনা নামিয়েও গোলের ব্যবধানে বাড়াতে পারেনি লাল-হলুদ৷

ম্যাচের ১৪ মিনিটে ডিকার গোলে এগিয়ে যায় ইস্টবেঙ্গল৷ কাসিমের পাস থেকে গোলকিপারকে একা পেলে বাঁ-পায়ে শট নেন ডিকা৷ কিন্তু পুলিশের গোলরক্ষক তাতে হাত লাগিয়ে আটকে দেন৷ এরপর ফিরতি বল জালে জড়াতে ভুল করেননি লালতে৷ ম্যাচের দ্বিতীয় গোলটি আসে কাসিমের হেড থেকে৷ ৩৮ মিনিটে ব্যবধান বাড়ান তিনি৷ তার পর ম্যাচ আর কোনও গোল হয়নি৷

দ্বিতীয়ার্ধে বেশ কয়েকটি সুযোগ তৈরি করলেও ইস্টবেঙ্গল গোল ব্যবধান বাড়াতে পারেনি৷ ৬১ মিনিটে গোল মিস করেন বিদ্যাসাগর৷ ৬৫ মিনিটে আবার লালডানমাওয়াইয়া রালতের একটি শট ডিফেন্সে প্রতিহত হয়৷ মাঠমাঝের নিয়ন্ত্রণ রাখতে ৬৫ মিনিটে আমনাকে মাঠে নামান লাল-হলুদ কোচ৷ পরের পঁচিশ মিনিটে মাঝমাঠ চষে বেড়ালেও আমনার খেলার মন ভরল না৷ আমনার ফিটনেশ নিয়েও প্রশ্ন থেকে যাচ্ছে৷ বিপক্ষ পুলিশে এদিন কোনও বিদেশি ছিল না৷ এদিন পুলিশের অফসাইড ট্র্যাপে বেশ কয়েকটি গোলের সুযোগ হাতছাড়া করে ইস্টবেঙ্গল৷ ম্যাচের সেরা হয়েছেন ডিকা রালতে৷

টালিগঞ্জের বিরুদ্ধে শুক্রবার ইস্টবেঙ্গলের প্রথম ম্যাচ বৃষ্টির জন্য পরিত্যক্ত হয়৷ প্রথমার্থের পর প্রবল বৃষ্টিতে খেলোয়াড়দের সুরক্ষার কথা ভেবে ম্যাচ বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেন৷ পরে আর ম্যাচ শুরু না-হওয়ায় ম্যাচ কমিশনার লিগের প্রথম ম্যাচই বাতিল ঘোষণা করতে বাধ্য হন৷ ইস্টবেঙ্গল প্রথম ম্যাচে খাতা খুলতে না-পারলেও চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী মোহনবাগান অবশ্য প্রথম ম্যাচে পাঠচক্রকে হারিয়ে কলকাতা নিগ জয় দিয়ে শুরু করে৷

----
--