ওয়েলিংটনে ট্র্যাজিক হিরো উইলিয়ামসন

ওয়েলিংটন: নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে লো স্কোরিং তৃতীয় একদিনের ম্যাচে উত্তেজক জয় তুলে নিল ইংল্যান্ড৷ একই সঙ্গে পাঁচ ম্যাচের সিরিজে ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে যায় সফরকারী দল৷

ওয়েলিংটনে টসে জিতে ব্রিটিশদের প্রথমে ব্যাট করার আমন্ত্রণ জানায় কিউয়িরা৷ শুরু থেকেই ধারাবাহিকভাবে উইকেট হারাতে থাকা ইংল্যান্ড ৫০ ওভারে ২৩৪ রানে অলআউট হয়ে যায়৷ দলনায়ক মর্গ্যান ইংল্যান্ডের হয়ে সর্বোচ্চ ৪৮ রানের ইনিংস খেলেন৷ বেন স্টোকস করেন ৩৯ রান৷

এছাড়া জোস বাটলার ২৯, মঈন আলি ২৩, জো রুট ২০, জনি বেয়ারস্টো ১৯, ক্রিস ওকস ১৬ ও জেসন রয় ১৫ রানের যোগদান রাখেন৷

- Advertisement -

ব্ল্যাক ক্যাপসদের হয়ে ৫৩ রানে ৩টি উইকেট নেন ইস সোধি৷ ৪৭ রানে ২টি উইকেট নিয়েছেন ট্রেন্ট বোল্ট৷ একটি করে উইকেট নিয়েছেন সাউদি ও গ্র্যান্ডহোম৷

পাল্টা ব্যাট করতে নেমে নিউজিল্যান্ড শুরুটা মন্দ না করলেও মিডল অর্ডারে ধস নামলে তীরে এসে তরি ডোবে কিউয়িদের৷ মার্টিন গাপ্টিল ৩ রান করে সাজঘরে ফেরেন৷ উইলিয়ামসনকে সঙ্গে নিয়ে কলিন মুনরো প্রাথমিক বিপর্যয় রোধ করেন৷ দ্বিতীয় উইকেটের জুটিতে ৬৮ রান যোগ করার পর ব্যক্তিগত হাফসেঞ্চুরির দোরগোড়া থেকে ফিরতে হয় মুনরোকে৷ তিনি আউট হন ৪৯ রান করে৷

উইলিয়ামসন এক প্রান্ত আঁকড়ে দুরন্ত শতরান করলেও মিচেল স্যান্টনার ছাড়া আর কেউই দলনায়ককে সঙ্গ দিতে পারেননি৷ স্যান্টনার ৪১ রান করে রানআউট হন৷ উইলিয়ামসন অপরাজিত থাকেন ব্যক্তিগত ১১২ রানে৷ বাকিরা কেউ দু’অঙ্কের রানে পৌঁছতে পারেননি৷ ফলে নির্ধারিত ৫০ ওভারে কিউয়িদের আটকে যেতে হয় ৮ উইকেটে ২৩০ রানে৷ দল জিততে না পারায় ব্যর্থ হয় উইলিয়ামসনের অনবদ্য লড়াই৷

শেষ ওভারে জয়ের জন্য ১৫ রান দরকার ছিল৷ নিউজিল্যান্ড ১০ রানের বেশি তুলতে পারেনি৷ ৪ রানের সংক্ষিপ্ত ব্যবধানে ম্যাচ জিতে যায় ইংল্যান্ড৷ মঈন আলি ৩৬ রানে ৩ উইকেট নিয়ে ম্যাচের সেরা হয়েছেন৷ দু’টি করে উইকেট পেয়েছন ওকস ও রশিদ৷

Advertisement
---