‘২ কোটি টাকা দিন, মুখ্যমন্ত্রীর মুখ বসিয়ে দেব সেক্স সিডিতে’

ছবি প্রতীকী

নয়াদিল্লি: সামনেই গুজরাতের বিধানসভা নির্বাচন। আর তার আগেই সদ্য ফাঁস হয়েছে হার্দিক পটেলের একটি সেক্স সিডি। যেখানে একটি ঘরে এক অজ্ঞাতপরিচয় মহিলার সঙ্গে ঘনিষ্ঠা অবস্থায় দেখা গিয়েছে তাঁকে। এবার সেই সেক্স সিডি নিয়ে ফের সরব হলেন তিনি। বললেন, ওই সিডি একেবারেই মিথ্যা। চাইলে ওরকম একটি সিডিতে গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রূপানির মুখ বসিয়ে দেওয়া যেতে পারে বলেও মন্তব্য করেছেন তিনি।

মঙ্গলবার জি নিউজ-কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এই সেক্স সিডির বিষয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন তিনি। তাঁর ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে কেন এত প্রশ্ন উঠছে তা নিয়ে তিনি ক্ষুব্ধ। আদতে তাঁকেই ওই সিডিতে দেখা গিয়েছে কিনা, সেবিষয় প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, তিনি সত্যিই ওই ভিডিওতে ছিলেন কিনা, সেটা প্রমাণ করার থেকেও অনেক গুরুত্বপূর্ণ বিষয় রয়েছে। ব্যক্তিগত বিষয় নিয়ে প্রশ্নের উত্তর দিতে রাজি নন বলেই জানিয়ে দেন তিনি। হার্দিক পটেল বলেন, ‘সিডিটি সম্পূর্ণ মিথ্যা। আমাকে ২ কোটি টাকা দিন, আমিই রূপানির মুখ ওই ভিডিওতে বসিয়ে দেব।’

হার্দিক পটেলের অভিযোগ, ভোটের আগে গুজরাতের আসল সমস্যাগুলোকে চাপা দিতে বিজেপি ওই ভিডিও প্রচার করেছে। তিনি আরও বলেন, এবার থেকে স্নান করার সময় জানলা বন্ধ রাখতে হবে তাঁকে।

- Advertisement -

পাতিদার আন্দোলনের নেতা হার্দিক পটেলের সেক্স ভিডিও প্রকাশ্যে আসে কিছুদিন আগে। যেটি গত ১৬ মে একটি হোটেলের ঘরে রেকর্ড করা হয়েছে বলে জানা যায়। যদিও ভিডিওটি খতিয়ে দেখা হয়নি।

Advertisement ---
-----