হাঙর ভেজিটেরিয়ন? বিজ্ঞানীরাও অবাক

নিউ ইয়র্ক: শার্ক তাও আবার ‘ভেজিটেরিয়ন’৷ হ্যাঁ, এমনই বিরল প্রজাতির হাঙর আবিষ্কার করলেন বিজ্ঞানীরা৷ যেটিকে পৃথিবার সর্বপ্রথম সর্বভুক শার্কের পরিচিতি দেওয়া হচ্ছে৷ এই বিশেষ প্রজাতির হাঙরটি নাকি সমুদ্রে ঘাসের ৬০ শতাংশ ভক্ষণ করেছে৷ জিনহুয়া সংবাদ সংস্থার তথ্য অনুসারে, বিষয়টি রির্পোটে আসার পরই বিশেষ প্রজাতির হাঙর নিয়ে আরও গবেষণার সিদ্ধান্ত নেন বিশেষজ্ঞরা৷

বিষয়টি স্পষ্ট করার জন্য শুরু হয় পরীক্ষা-নিরীক্ষার কাজ৷ গবেষণার জন্য নেওয়া হয় পাঁচটি শার্ক৷ তিন সপ্তাহের গবেষণায় শার্কগুলিকে দেওয়া খাবার হিসেবে দেওয়া হয়েছিল সমুদ্রের ঘাস এবং ছোট ছোট কিছু শামুক৷ গবেষণার তথ্য জানাচ্ছে, হাঙরের দেহে রয়েছে এক বিশেষ ধরণের উৎসেচক৷ যেটি সমুদ্র ঘাসের হজমে বিশেষ সহায়তা করে থাকে৷ গবেষণা শেষে পুনরায় হাঙরগুলির ওজন মাপা হয়৷

গবেষণায় উঠে আসা তথ্যটি প্রকাশিত হয় প্রসিডিংস অফ দ্য রয়াল সোশাইটি বি নামক জার্নালে৷ গবেষণায় উঠে আসা তথ্য বদলেছে পুরনো প্রচলিত ধারণাকে৷ সাধারণভাবে মনে করা হত হাঙর মাংশাসী প্রাণী৷ তবে, সেটা যে একেবারেই ঠিক ধারণা নয় এবার তারই প্রমান পাওয়া গেল হাতেনাতে৷ সংবাদ মাধ্যমকে গবেষক প্রধান জানান, ‘হাঙরদের মধ্যেও যে এই ধরণের পরিপাকতন্ত্রের অস্তিত্ব রয়েছে, বিষয়টি জেনে আমরা অবাক হয়েছি৷’

Advertisement ---
-----