হুমকির মুখে ফরাসি প্রেসিডেন্টের ভারত সফর

নয়াদিল্লি: প্রজাতন্ত্র দিবসে ফরাসি প্রেসিডেন্টকে লক্ষ্য করে জঙ্গি হানার সতর্কবার্তা আগেই দিয়েছিল কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা বাহিনী। এবার সেই সতর্কবার্তাকে আরও একধাপ সত্যি প্রমাণিত করল হুমকি চিঠি। ফরাসি প্রেসিডেন্ট ফ্রান্সিস ওঁলাদের ভারত সফরের কড়া নিষেধাজ্ঞা জানিয়ে হুমকি চিঠি গেল ফরাসি দূতাবাসে। এই চিঠিটিই বর্তমানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের মাথাব্যাথার বিশেষ কারণ। যদিও ফরাসি প্রেসিডেন্টের ভারত সফর নিয়ে কড়া নিরাপত্তার ব্যবস্থা করা হয়েছে। তবে চিঠিটির সত্যতা জানতে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। কারা চিঠিটি পাঠিয়েছে, তাও এখনও জানা যায়নি।

জানা গিয়েছে, ফ্রান্সিস ওঁলাদের ভারত সফরে নিষেধাজ্ঞা জানিয়ে বেঙ্গালুরুতে অবস্থিত ফরাসি দূতাবাসে একটি হুমকি চিঠি গিয়েছে। যদিও চিঠিটি গত ১১ জানুয়ারি ফরাসি দূতাবাসে পৌঁছেছিল এবং ১৪ জানুয়ারি বেঙ্গালুরুর হাই গ্রাউন্ড থানায় এই চিঠির ব্যাপারে অভিযোগ দায়ের হয়েছিল। তারপর এতদিন গোপন রাখার পর বৃহস্পতিবার খবরটি প্রকাশ্যে আনা হয়। যদিও অভিযোগ দায়েরের পর থেকেই এই চিঠি সম্পর্কে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। কে, কোথা থেকে এই চিঠি পাঠাল তা নিয়ে তদন্ত শুরু হয়েছে এবং জানা গিয়েছে, চেন্নাই থেকে চিঠিটি পোস্ট করা হয়েছে। তবে এই চিঠির প্রেরক সম্পর্কে এখনও কিছু জানা যায়নি।

তবে যাই হোক, এখনও পর্যন্ত ভারত সফরের পরিকল্পনা বাতিল করেননি ফরাসি প্রেসিডেন্ট। পূর্ব নির্ধারিত সূচী অনুসারে, ২৪ জানুয়ারিই ভারতে আসছেন তিনি। তবে ওই দিন দিল্লি নয়, চন্ডীগড়ে নামবেন ওঁলাদে। চন্ডীগড়ে গিয়ে তাঁকে স্বাগত জানাবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তারপর ২৬ জানুয়ারি দিল্লিতে প্রজাতন্ত্র দিবসের কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করবেন তিনি। বলা বাহুল্য, ওই অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথিই ফ্রান্সিস ওঁলাদে। তাই তাঁর জন্য বিশেষ নিরাপত্তার ব্যবস্থা করেছে নয়াদিল্লি। গোয়েন্দা বাহিনীর সতর্কতা এবং হুমকি চিঠি মাথায় রেখে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্টকে নিরাপত্তার ঘেরাটোপে রাখার ব্যবস্থা করেছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক। প্রজাতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানের নিরাপত্তার খাতিরে ফরাসি গোয়েন্দাদের সঙ্গে ভারতের কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা একযোগে কাজ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এছাড়া অনুষ্ঠানের নিরাপত্তায়  ১০ হাজার প্যারামিলিটারি সেনার সঙ্গে অতিরিক্ত ৮০ হাজার সেনা মোতায়েন করা হয়েছে দিল্লির কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে। এছাড়া অনুষ্ঠানের আগের দিন থেকে পুরো রাজপথে ‘হাই অ্যালার্ট’ জারি করে ৭১টি উঁচু বহুতল বন্ধ করে দেওয়ার সিদ্ধান্তও নিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক।      

- Advertisement -

 

Advertisement
---