চন্ডীগড়: হরিয়ানার গায়িকা এবং অভিনেত্রী শিখা রাঘবকে ৬০ লাখ টাকার প্রতারণায় গ্রেফতার করেছে পুলিশ৷ নোটবাতিলের সময় এক মহিলাকে টাকা বদলানোর প্রতিশ্রুতি দিয়ে ৬০ লাখ টাকার প্রতারণার অভিযোগ উঠেছে শিখার বিরুদ্ধে৷

২৭ বছর বয়সী এই শিল্পী বৃহস্পতিবার হরিয়ানার, বাহাদুরগড়ে শ্যুটিং করছিলেন৷ সেখান থেকেই তাঁকে গ্রেফতার করা হয়েছে৷ দুই বছরের পুরনো মামলায় দিল্লির আদালত শিখাকে পলাতক ঘোষণা করেছিল৷ উত্তরী জেলা পুলিশ শিখাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা শুরু করে দিয়েছে৷ তবে শিখাকে জিজ্ঞাসাবাদের আগে শিখার আরও এক সাথী পবণকেও গ্রেফতার করেছে৷ পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, রানাপ্রতাপ বাগ নিবাসী সন্তোষ ভরদ্বাজ দু’বছর আগে ৬০ লাখ টাকার প্রতারণার অভিযোগ জানিয়েছিলেন৷

সুভাষ প্লেস কমিটির মাধ্যমে শিখা এবং পবনের সঙ্গে সন্তোষের আলাপ হয়৷ সন্তোষের কাছে সেই সময় ৬০ লাখ টাকার পুরনো নোট ছিল৷ শিখা এবং পবনের সঙ্গে কথাবার্তা চলাকালীন সন্তোষকে, শিখা খুব কম মূল্যের বিনিময় পুরনো নোট বদলে দেওয়ার লোভ দেখায়৷ সন্তোষ তাঁদের কথায় রাজি হয়ে যায় কিন্তু তার টাকা শিখা বদলে দেননি৷ সন্তোষের আইনি অভিযোগের পর আগে পবনকে গ্রেফতার করা হয়৷ পবনের বয়ান ভিত্তিতে শিখাকে গ্রেফতার করতে সফল হয় পুলিশ৷

--
----
--