পরকীয়ার সন্দেহে স্ত্রীর যৌনাঙ্গ আঠা দিয়ে আটকে দিলেন স্বামী

ব্যবসায়িক কাজে স্বামী কয়েকদিনের জন্যে বাইরে যাবেন। এই ফাঁকে তাঁর স্ত্রী যাতে অন্য কারও সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে জড়িয়ে না পড়ে তার জন্যে স্ত্রীর গোপনাঙ্গ ‘সুপার গ্লু আঠা’ দিয়ে আটকে দিয়েছেন। ঘটনাটি ঘটেছে কাতারে। কাতারের একটি জনপ্রিয় সংবাদমাধ্যম দোহা ট্রিবিউন এই খবর প্রকাশ করেছে।

জানা গিয়েছে এই ঘটনার পড়ে ওই মহিলা গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে তাঁকে হাসপাতালের জরুরি বিভাগে ভর্তি করানো হয়। এই ঘটনা জানাজানি হলে ৩৩ বছরের ওই স্বামীকে পুলিশ গ্রেফতার করে। অভিযুক্ত স্বামী বিচারকের কাছে দোষ স্বীকার করে জানিয়েছেন- ফেসবুকে ১২ বছরের এক কাকাতো ভাইয়ের পোস্ট দেখে সন্দেহ হয়। তার মনে হয় তার অনুপস্থিতিতে স্ত্রী এবং ভাই যৌনতায় লিপ্ত হতে পারেন। যার জন্যে তিনি এমন কাণ্ড ঘটাতে বাধ্য হয়েছেন। এমনকি বিচারকের কাছে তিনি ফেসবুকের একটি সেলফি পোস্টও দেখিয়ে বলেন যেখানে তার স্ত্রীর পা স্পষ্ট দেখা যাচ্ছে এবং ইসলামী আইন অনুযায়ী ঢাকা নেই। স্ত্রীকে ইসলাম সম্মতভাবে চলার নির্দেশ দিয়েও কোন কাজ না হওয়ায় তিনি আগে থেকেই ক্ষুব্ধ ছিলেন বলে জানিয়েছেন বিচারককে।

অভিযুক্তের বিরুদ্ধে স্ত্রীকে খুনের অভিযোগ আনা হয়েছে। এই ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর গোটা বিশ্বে সমালোচনার ঝড় বয়ে যায়। যদিও কাতারের অনেকে এই খবরকে ভুয়ো বলে দাবি করেছেন।

Advertisement
-----