হানিমুনের রাতে স্বামীর শারীরিক রহস্যে ফাঁস করলেন স্ত্রী! এরপর…

সদ্য বিয়ে হয়েছে! সবকিছু ঠিকঠাকই চলছিল। কিন্তু সমস্যা বাঁধল হানিমুনে গিয়ে। ছয়দিন পর হানিমুন থেকে ফিরে বিস্ফোরক মন্তব্য স্ত্রীয়ের। স্বামী নাকি শারীরিকভাবে সম্পূর্ণ অক্ষম। সদ্য বিবাহিত নববধুর এহেন বিস্ফোরক মন্তব্যে শুরু হয় তীব্র বিতর্ক-সমালোচনা। ঘটনাকে কেন্দ্র করে ছেলের বাড়ির লোকজনের মধ্যে বেঁধে যায় বিরোধ। স্ত্রী দাবি করেন, বিষয়টি নিয়ে অবিলম্বে ডাক্তারের পরামর্শ নেওয়ার। কিন্তু তাতে কিছুতেই রাজি হয় না ছেলে এবং তাঁর পরিবার। দিনে দিনে সমস্যা আরও জটিল হয়ে পড়ে। শেষমেশ স্বামী এবং তাঁর পরিবারের লোকজনের বিরুদ্ধে প্রতারণার মামলা দায়ের করার হুঁশিয়ারি দেয়। এমনকি, বিয়ের জন্যে যত টাকা খরচ হয়েছে তা ফেরত দিয়ে দেওয়ারও হুঁশিয়ারি দেয় মেয়ের পরিবার।

২০১৭ সালের ১২ মে বিয়ে হয় মথুরার বাসিন্দার সঙ্গে। স্ত্রীয়ের অভিযোগ, বিয়ের পর থেকে স্বামীর মধ্যে বেশ কিছু পরিবর্তন নজরে আসে। যে কোনও মূল্যে তাকে এড়িয়ে স্বামী এড়িয়ে যায় বলে অভিযোগ। কিন্তু বিষয়টি নিয়ে মোটেই প্রথম চাপ নেয় না স্ত্রী। এরপরেই মানালিতে হানিমুনে যান তারা। সেখানে গিয়েই সব বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে। জানতে পারেন, স্বামী শারীরিকভাবে একেবারেই অক্ষম। এই বিষয়টি তাঁর বাড়ির লোকেও জানত। অভিযোগ, তা চেপে গিয়েই ছেলের বিয়ে দেন তারা। আর তা প্রকাশ্যেই আসতেই কার্যত ভেঙে পড়েছেন স্ত্রী।

Advertisement
----
-----