১০০ কোটি খরচে ইজরায়েল থেকে ৮০০০ অ্যান্টি ট্যাংক মিসাইল কিনছে ভারত

নয়াদিল্লি: কয়েক হাজার নতুন মিসাইল কিনতে ইজরায়েলের রাফায়েল ডিফেন্স কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি করল ভারত। শত্রুদের ট্যাংকে আঘাত হানতে কেনা হচ্ছে এইসব ‘স্পাইক’ মিসাইল। এগুলি সবই ইজরায়েলে তৈরি ল্যান্ড-টু ল্যান্ড মিসাইল। এগুলি সবই “fire-and-forget” সিস্টেমে তৈরি। এই মিসাইলেরই কয়েকটি মিসাইল “fire, observe, and update” ভার্সানও রয়েছে।

আরও পড়ুন: ৪৫০০০ ফুট উঁচু থেকে ইজরায়েলি ড্রোনে চিন-পাকিস্তানে নজর রাখবে ভারত

আগামী ৩১ মার্চের মধ্যেই এই চুক্তির অনুমোদন দেবে কেন্দ্রের নিরাপত্তা সংক্রান্ত ক্যাবিনেট কমিটি। এরপর মাসখানেকের মধ্যে চুক্তি সম্পূর্ণ করতে চলেছে প্রতিরক্ষা মন্ত্রক। এই চুক্তি অনুযায়ী, ১০০ কোটি খরচে ৩২১টা স্পাইক লঞ্চার ও ৮,৩৫৬টি অ্যান্টি ট্যাংক গাইডেট মিসাইল কিনতে চলেছে ভারত। পাঁচ বছরের মধ্যেই এগুলি ভারতে আসবে। এর আগে ২০১৪ তে ৮০০০ স্পাইক অ্যান্টি ট্যাংক মিসাইল ও ৩০০টি লঞ্চার কিনতে ভারত খরচ করেছিল প্রায় ৫৩ কোটি টাকা। ৪, ৮ ও ২৫ কিলোমিটার রেঞ্জে আঘাত করতে পারে স্পাইক লঞ্চার।

- Advertisement -

আরও পড়ুন: ১৭০০০ কোটির চুক্তি! লং রেঞ্জের মিসাইল তৈরি করবে ভারত ও ইজরায়েল

কিছুদিন আগেই এক বড়সড় চুক্তি হয় ভারত ও ইজরায়েলের মধ্যে। যৌথ উদ্যোগে একটি সারফেস-টু-এয়ার মিসাইল তৈরির জন্য ইজরায়েলের সঙ্গে ১৭০০০ কোটি টাকার চুক্তি হয় ভারত। পুরো প্রজেক্টটি ভারতের ডিআরডিও ও ইজরায়েলি এয়ারক্রাফট ইন্ডাস্ট্রির তত্ত্বাবধানে হবে। ২০১৭ সালে ভারত-ইজরায়েলের মধ্যে কূটনৈতিক সম্পর্কের ২৫ বছর পূর্ণ হচ্ছে। বিষয়টি মাথায় রেখে চলতি বছরেই ইজরায়েল সফরেও যাবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

আরও পড়ুন: অর্থের অভাবে ইজরায়েলের মহিলা সেনা-আধিকারিকরা দেহব্যবসার কাজে নামছে!

Advertisement ---
---
-----