নয়াদিল্লি: সম্প্রতি, প্রথম দেশে তৈরি এয়ার-টু-এয়ার মিসাইলের লাইভ ফায়ার ড্রিল চালিয়েছে ভারত। আর সেই সাফল্যে প্রশংসা করলেন প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারামন। প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, সোমবার থেকে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত ওড়িশার চাঁদিপুর উপকূলে বঙ্গোপসাগরের উপরে সফলভাবে অস্ত্র বিভিআরএএম ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা করা হয়েছে। চালকবিহীন বিমানের বিরুদ্ধে সাতবার এই ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা করা হয়েছে।

৩.৮ মিটার লম্বা অস্ত্র মার্ক-১ সিঙ্গল স্টেজ মিসাইলটির রেঞ্জ ৭৫ কিলোমিটার। অর্থাৎ ৭৫ কিলোমিটার দূরের টার্গেটে আঘাত করতে পারবে এই মিসাইল। ফরাসি BVRAAM মিসাইলের থেকে যার গতি চার গুন বেশি।

Advertisement

ভারতীয় বায়ুসেনার সঙ্গে যৌথ উদ্যোগে ডিআরডিও এই ক্ষেপণাস্ত্র তৈরি করেছে। শুক্রবার পরীক্ষামূলকভাবে এই মিসাইল ছোঁড়া হয় Su-30MKI ফাইটার জেট থেকে। চালকবিহীন এয়ারক্রাফটের উদ্দেশে ছোঁড়া হয় এটি। দৃষ্টিশক্তির বাইরে থাকা টার্গেটে অনায়াসে আঘাত করতে পারবে এই মিসাইল। সূত্রের খবর যুদ্ধের মত পরিস্থিতি তৈরি করে এই মিসাইল পরীক্ষা করা হয়।

ডিআরডিও তৈরি করেছে এই অস্ত্র মিসাইল। এটিই দেশে তৈরি প্রথম BVR (বিয়ন্ড ভিস্যুয়াল রেঞ্জ) মিসাইল। এর আগে ফরাসি, রাশিয়ান ও ইজরায়েলি BVR মিসাইল ব্যবহার করা হত। ভারতীয় বায়ুসেনা ইতিমধ্যেই ৫০টি অস্ত্র মিসাইলের অর্ডার দিয়েছে।

----
--