লিফটে চেপেই গেলে হয় চাঁদে! ভারতীয় ছাত্রের সুপার-আইডিয়াকে পুরস্কৃত করছে NASA

বেঙ্গালুরু: স্বপ্নের আর এক নাম ‘চাঁদে যাওয়া’। প্রবাদ হিসেবেই আমরা ব্যবহার করি চন্দ্রভ্রমণের উদাহরণ। আর ছেলেবেলায় যে কত এমন ‘চাঁদে যাওয়া’র স্বপ্ন আসে আর মিলিয়ে যায় তার কোনও হিসেব নেই। কিন্তু এ তো যেমন-তেমন ছেলে নয়! একেবারে চাঁদে যাওয়ার স্বপ্নকে সত্যি করেই ছাড়ল! ১৮ বছরের সাই কিরণকে চাঁদে যাওয়ার স্বপ্ন সত্যি করার উপহার হিসেবে পুরস্কার দেবে খোদ নাসা। Nasa Ames Space Settlement Contest-এ দ্বিতীয় স্থান পেয়েছে এই ছাত্র।

চাঁদে যাওয়ার জন্য চাঁদ থেকে পৃথিবী পর্যন্ত একটা লিফট বানানোর প্রস্তাব দিয়েছে সাই কিরণ। যাতে চাঁদে যাতায়াত মানুষের পক্ষে সহজ হয়। প্রত্যেক বছর NASA, San Jose State University এবং National Space Society (NSS) মিলে এক বিশেষ প্রতিযোগিতার আয়োজন করে। যেখানে অংশগ্রহণ করে গোটা বিশ্বের স্কুল-ছাত্ররা। যেখানে ওইসব ছাত্রদের ব্যাখ্যা করতে বলা হয়, যে কোন পদ্ধতিতে মানুষের চাঁদে গিয়ে বসতি বানানো সম্ভব।

এই প্রতিযোগিতার কথা শোনার পর থেকেই এবিষয়ে পড়াশোনা করতে শুরু করে সাই কিরণ। ২০১৩ থেকে এই নিয়ে গবেষণা করে সে। এমনকি একটা আস্ত থিসিসও লিখে ফেলে সে। যার শিরোনাম ‘Connecting Moon, Earth and Space’, যেখানে সে ব্যাখ্যা করে কিভাবে লিফটের মাধ্যমে মানুষকে এই পৃথিবী থেকে চাঁদে নিয়ে যাওয়া সম্ভব। শুধুমাত্র চাঁদে যাওয়াই নয়, সেখানে বিনোদনের কি ব্যবস্থা থাকতে পারে, সরকার চালানো যেতে পারে কিভাবে, সেসব ব্যাখ্যাও দিয়েছে ১৮ বছরের এই ছাত্র। সে জানিয়েছে ওই লিফটরে দৈর্ঘ্য হবে ৪০,০০০ কিলোমিটার। সেই লিফট চাঁদে কিংবা পৃথিবীর গায়ে আটকে থাকবে।

সত্যি বলতে, এমন অনেক আইডিয়া হয়ত আমরাও ভেবেছি ছেলেবেলায়। কিন্তু, প্রযুক্তিগত ব্যাখ্যার অভাবে সেটা আর খাতায়-কলমে বোঝানো সম্ভব হয়নি। আর এটাই করে দেখাল চেন্নাইয়ের সাই কিরণ।

----
-----