রাফায়েল ইস্যু: মোদীকে ‘হিন্দু জাতীয়তাবাদী প্রধানমন্ত্রী’ বলল ফরাসি সংবাদপত্র

প্যারিস: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর রাফায়েল চুক্তি নিয়ে তোলপাড় হচ্ছে দেশ। বারবার প্রশ্ন তুলছে বিরোধীরা। এবার সেই ইস্যুই উঠে এসেছে ফরাসি সংবাদমাধ্যমেও। কেন রাফায়েল ডিল নিয়ে ভারতীয় রাজনীতিতে জটিলতা তৈরি হয়েছে, সেই বিষয় নিয়েই এবার চর্চা হল ফরাসি সংবাদমাধ্যমেও। রাহুল গান্ধীর বক্তব্যও তুলে ধরা হল সেখানে।

৭৮ বছর ডিফেন্স ম্যানুফ্যাকচারিং-এ অভিজ্ঞতা থাকা সত্বেও, কেন অম্বানিদের সঙ্গে ফরাসি সংস্থা ড্যাসল্টের চুক্তি হল, সেই প্রশ্নকেও গুরুত্ব দিয়েছে ফ্রান্স। France24 নামে ওই সংবাদমাধ্যম লিখছে, ”৫৯ বছরের বিলিয়নেয়ার ব্যবসায়ী অম্বানির টেলিকম সেক্টরে কিছুটা সাফল্যের অভিজ্ঞতা রয়েছে।” নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে অম্বানির সখ্যতার বিষয়টিও উল্লেখ করেছে ওই সংবাদমাধ্যম। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে ‘ভারতের হিন্দু জাতীয়তাবাদী প্রধানমন্ত্রী’ বলে উল্লেখ করেছে ফরাসি সংবাদপত্র।

রাফায়েল চুক্তিতে রিলায়েন্স এন্টারটেনমেন্টের আসা ও পরবর্তীকালে রাফায়েলের চুক্তির অঙ্গ হিসাবে অম্বানিদের রিলায়েন্স ডিফেন্সের রিলায়েন্স এয়ারোস্পেসের নাম সামনে আসা নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন রাহুল। তাঁর দাবি, ডিফেন্স সেক্টরে অভিজ্ঞতা না থাকা সত্বেও কেন করা হল এই চুক্তি। রাহুলের দাবি, নরেন্দ্র মোদী রাফায়েল চুক্তি করার দিন ১৫ আগেই তৈরি হয় ‘রিলায়েন্স ডিফেন্স’ নামে ওই সংস্থা। যদিও সেই দাবি অস্বীকার করে আগেই জবাব দিয়েছেন অনিল অম্বানি।

- Advertisement -

রাফায়েল চুক্তি নিয়ে কংগ্রেসের বিরুদ্ধে আইনি পথেও লড়াই শুরু করেন রিলায়েন্স গ্রুপের কর্ণধার অনিল। কংগ্রেসের মালিকানাধীন ন্যাশনাল হেরাল্ড পত্রিকার প্রকাশক ও সম্পাদক জফর আগার বিরুদ্ধে পাঁচ হাজার কোটি টাকার মানহানির মামলা করেন তিনি। মামলার কারণ প্রসঙ্গে রিলায়েন্সের তরফে জানান হয়েছে, পত্রিকায় রাফায়েল চুক্তি নিয়ে প্রকাশিত একটি খবর মিথ্যাভাবে পরিবেশন করা হয়। যা অনিল আম্বানির ভাবমূর্তিকে ক্ষুণ্ন করেছে।

ইউপিএ আমলেই ফ্রান্সের থেকে ৩৬টি রাফায়েল যুদ্ধবিমান কেনার বিষয়ে প্রাথমিক কথা হয়েছিল। এরপর ২০১৫ সালে নরেন্দ্র মোদী ফ্রান্সে গিয়ে যে চুক্তি করে আসেন, তাতে বিমানের দাম রাতারাতি আকাশছোঁয়া হয়ে গিয়েছে বলে অভিযোগ তোলেন রাহুল গান্ধী। কংগ্রেস সভাপতির অভিযোগ ছিল, যা করা হয়েছে বিশেষ একটি ব্যবসায়িক গোষ্ঠীকে সুবিধা করে দিতে। ফলে এই রাফায়েল চুক্তিতে দুর্নীতির অভিযোগ তুলে যুগ্ম সংসদীয় কমিটির তদন্ত দাবি জানায় কংগ্রেস।

Advertisement
---