২০১৮ আইপিএল: বিরাটের ব্যাটেই ঝুলছে ‘রয়্যাল’ ভাগ্য

কলকাতা২৪x৭: খাতায়-কলমে আইপিএলে প্রত্যেকবারই ফেভারিটের মর্যাদা পায় রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর৷ চোখ ধাঁধানো স্কোয়াড নিয়ে লড়াইয়ে নামলেও ফলাফলের ক্ষেত্রে পর্বতের ‘মুষিক প্রসব’ দেখা যায় আরসিবি-র পারফরম্যান্সে৷ এবার অভিজ্ঞ তারকা ও প্রতিভাবান তারুণ্যের মিশেলে একটা ব্যালান্সড দল গড়ে আইপিএল চ্যাম্পিয়নদের দলে নাম লেখাতে চাইছেন বিরাট কোহলিরা৷ এবারও টুর্নামেন্টের অন্যতম ফেভারিট তারা৷

স্কোয়াড:-
ব্যাটসম্যান: বিরাট কোহলি (অধিনায়ক), পবন দেশপান্ডে, ব্রেন্ডন ম্যকালাম, মনন ভোরা, এবি ডি’ভিলিয়ার্স, মনদীপ সিং, সরফরাজ খান৷

উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান: পার্থিব প্যাটেল, কুইন্টন ডি’কক৷

- Advertisement -

অলরাউন্ডার: পবন নেগি, কোরি অ্যান্ডারসন, ক্রিস ওকস, কলিন ডি’গ্র্যান্ডহোম, মইন আলি, ওয়াশিংটন সুন্দর, অনিরুদ্ধ যোশী৷

বোলার: টিম সাউদি, অনিকেত চৌধুরি, উমেশ যাদব, কুলবন্ত খেজরোলিয়া, নবদীপ সাইনি, মুরুগান অশ্বিন, মহম্মদ সিরাজ ও যুবেন্দ্র চাহাল৷

সাপোর্ট স্টাফ:-
ড্যানিয়েল ভেটোরি (হেড কোচ)
গ্যারি কার্স্টেন (ব্যাটিং কোচ)
আশিস নেহেরা (বোলিং কোচ)
ট্রেন্ট উডহিল (ব্যাটিং ট্যালেন্ট ডেভলপমেন্ট অ্যান্ড ফিল্ডিং কোচ)
অ্যান্ড্রিউ ম্যাকডোনাল্ড (বোলিং ট্যালেন্ট ডেভলপমেন্ট অ্যান্ড অ্যানালিটিক্স)
ইভান স্পিচলি (ফিজিওথেরাপিস্ট)
অরুণ কানাডে (ম্যসাজ থেরাপিস্ট)
রমেশ মানে (অকুপ্রেসার ম্যাসিওর)
অবিনাস বৈদ্য (টিম অ্যান্ড ক্রিকেট অপরেশন ম্যানেজার)
এস রাজেশ্বর (লজিস্টিক্স ম্যানেজার)

দলের খবর:- একাদশ মরশুমের দল গড়ার সময় আরসিবি-র সব থেকে বড় সিদ্ধান্ত ছিল ক্রিস গেইলকে ছেড়ে দেওয়া৷বিরাট কোহলি ও এবি ডি’ভিলিয়ার্সের সঙ্গে তারা ধরে রাখে তরুণ ভারতীয় ব্যাটসম্যান সরফরাজ খানকে৷ নিলামেও গেইলের জন্য দর হাঁকতে দেখা যায়নি তাদের৷বরং ‘রাইট টু ম্যাচ কার্ডে’ যুবেন্দ্র চাহাল ও পবন নেগিকে ধরে রাখাই শ্রেয় মনে হয় ব্যাঙ্গালোর ফ্র্যাঞ্চাইজির৷

দলে বেশ কয়েকজন ম্যাচ উইনার রয়েছে৷ অধিনায়ক বিরাট ছাড়াও এবিডি ও ম্যকালামের মতো ধ্বংসাত্মক ব্যাটসম্যান রয়েছে আরসিবি দলে৷উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যন কুইন্টন ডি’ককও কার্যকরী ভূমিকা নিতে পারে আরসিবি-র হয়ে৷ গ্র্যান্ডহোম, অ্যান্ডারসনের মতো অল-রাউন্ডারদের পাশাপাশি সাউদি-সিরাদের মতো বোলারদের নিয়ে ট্রফি খরা কাটাতে মরিয়া থাকবে ব্যাঙ্গালোর৷

ট্রাম্প কার্ড:- আরসিবি দলে বরাবরই তারকার ছড়াছড়ি৷ এবারও তার ব্যতিক্রম নয়৷ তবে এতসব তারকার মাঝেও আলাদা করে নজর কাড়তে পারেন সরফরাজ খান, ওয়াশিংটন সুন্দর, ক্রিস ওকস, যুবেন্দ্র চাহালরা৷

অতীত রেকর্ড:- প্রতিবার তারকাখচিত দল গড়েও এখনও পর্যন্ত আইপিএল জেতা হয়নি রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরেরে৷ তিনবার ফাইনালে উঠেলও রানার্স হয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হয় আরসিবি-কে৷ ২০০৯ ফাইনালে ডেকান চার্জার্সের কাছে হারতে হয় ব্যঙ্গালোরকে৷ ২০১১ ফাইনালে আরসিবি-কে হারায় চেন্নাই সুপার কিংস৷ ২০১৬ ফাইনালে সানরাইজার্স হায়দরাবাদের কাছে বিধ্বস্ত হতে হয় কোহলিরেদর৷ এছাড়া ২০১০ ও ২০১৫ দু’বার প্লে-অফে জায়গা করে নিয়েছিল আরসিবি৷ বাকি মরশুমগুলিতে লিগ পর্যায় থেকেই বিদায় নিতে হয় তাদের৷

আরসিবি-র সূচি:-
৮ এপ্রিল: নাইট রাইডার্স (ইডেন, রাত ৮টা)
১৩ এপ্রিল: কিংস ইলেভেন পঞ্জাব (চিন্নাস্বামী, রাত ৮টা)
১৫ এপ্রিল: রাজস্থান রয়্যালস (চিন্নাস্বামী, বিকেল ৪টা)
১৭ এপ্রিল: মুম্বই ইন্ডিয়ান্স (ওয়াংখেড়ে, রাত ৮টা)
২১ এপ্রিল: দিল্লি ডেয়ারডেভিলস (কোটলা, রাত ৮টা)
২৫ এপ্রিল: চেন্নাই সুপার কিংস (চিন্নাস্বামী, রাত ৮টা)
২৯ এপ্রিল: নাইট রাইডার্স (চিন্নাস্বামী, রাত ৮টা)
১ মে: মুম্বই ইন্ডিয়ান্স (চিন্নাস্বামী, রাত ৮টা)
৫ মে: চেন্নাই সুপার কিংস (চিপক, বিকেল ৪টা)
৭ মে: সানরাইজার্স হায়দরাবাদ (উপ্পল, রাত ৮টা)
১২ মে: দিল্লি ডেয়ারডেভিলস (চিন্নাস্বামী, রাত ৮টা)
১৪ মে: কিংস ইলেভেন পঞ্জাব (ইন্দোর, রাত ৮টা)
১৭ মে: সানরাইজার্স হায়দরাবাদ (চিন্নাস্বামী, রাত ৮টা)
১৯ মে: রাজস্থান রয়্যালস (জয়পুর, বিকেল ৪টা)

Advertisement
---