নিরাপত্তার স্বার্থে নতুন কমিউনিকেশন স্যাটেলাইট লঞ্চ করল ইসরো

শ্রীহরিকোটা: যোগাযোগের জন্য স্যাটেলাইট আনছে ইসরো৷ ২০১৫ সালে GSAT- 6 স্যাটেলাইট লঞ্চ করেছিল ইসরো৷ এবার যে স্যাটেলাইটটি লঞ্চ করবে, সেটি এরই জোড়া৷ নাম GSAT- 6A৷ বৃহস্পতিবার বিকেল ৪টে ৫৬ মিনিটে এটি ছাড়া হয়৷

GSLV রকেট থেকে এই স্যাটেলাইটটি ছাড়া হবে৷ প্রায় ৪০০ জন বিজ্ঞানী ও ইঞ্জিনিয়ার এই স্যাটেলাইটের জন্য কাজ করেছেন৷ চেন্নাইয়ের সতীশ ধাওয়ান স্পেশ সেন্টার থেকে এটি ছাড়া হবে৷ রকেটের ক্রাইয়োজনিক ইঞ্জিন ইতিমধ্যেই ৬ বার পরীক্ষা করা হয়েছে৷ এটি বিকাশ ইঞ্জিনের রকেট ও এটি কাজ করে লিকুইট প্রোপেল্যান্টসে৷ রকেটকে বড় কোনও ধাক্কা থেকে এটি রক্ষা করবে৷ ভবিষ্যতে বিকাশ ইঞ্জিন ভারতীয় রকেটগুলির প্রধান অবলম্বন হতে চলেছে৷ ভারত যখন চন্দ্রায়ন-২ মিশনের জন্য রকেট পাঠাবে তখন এই ইঞ্জিনই সেখানে ব্যবহার করা হবে৷

GSAT-6A স্যাটেলাইটটি একটি বিশেষ কমিউনিকেশন স্যাটেলাইট৷ এর ওজন প্রায় ২ হাজার ৬৬ কেজি৷ এটি তৈরি করতে খরচ পড়েছে ২৭০ কোটি টাকা৷ ইসরোর প্রাক্তন চেয়ারম্যান কিরণ কুমার জানিয়েছেন, GSAT-6A ইসরোর সবচেয়ে বড় অ্যান্টেনাগুলোর মধ্যে একটি নিয়ে যাবে৷ এর ব্যাস ৬ মিটার৷ একবার কক্ষপথে প্রবেশ করার পর এটি ছাতার মতো খুলে যাবে৷ এর বড় আকারের জন্য ক্ষমতা বেশি৷ সমস্ত সিগন্যাল- তা সে ডেটা, ভিডিও বা ভয়েস, যাই হোক, তা সহজেই পাওয়া যাবে৷

- Advertisement -

GSAT-6 ও GSAT-6A স্যাটেলাইট দুটি দুদিক থেকেই ডেটা বিনিময় করতে পারবে৷ যেখানে মোবাইল কানেকটিভিটি সেই, তেমন কোনও প্রত্যন্ত জায়গা থেকেও ডেটা বিনিময় সম্ভব হবে৷ এর ফলে সেনা অনেক ক্ষেত্রে সুবিধা পাবে৷ তবে যোগাযোগ যাতে আরও সহজ হয় তার জন্য কাজ করছে ডিফেন্স রিসার্চ অ্যান্ড ডেভলপমেন্ট অর্গানাইজেশন৷

Advertisement ---
---
-----