স্টাফ রিপোর্টার, জলপাইগুড়ি: অবিলম্বে টেটের নেওয়ার দাবি সহ পাঁচ দফা দাবিতে শুক্রবার স্মারকলিপি জমা দিলেন ডিএলএড শিক্ষার্থীরা। ডিএলএড স্বাধিকার রক্ষা কমিটির তরফে জলপাইগুড়ি জেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় সংসদের সভাপতির কাছে এই স্মারকলিপি দেওয়া হয়।

সংগঠনের তরফে জানানো হয়েছে, সম্প্রতি এনসিটিইএ-র তরফে এক বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে। এই বিজ্ঞপ্তিতে ডিএলএড শিক্ষার্থীদের অধিকারহরণ করা হয়েছে৷ সকল ডিএলএড শিক্ষার্থীদের টেট পরীক্ষায় বসার সুযোগ দিতে হবে। এই বিষয়ে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রয়োজনীয় হস্তক্ষেপের দাবি জানানো হয়েছে বলে জানান তাঁরা।

Advertisement

আরও পড়ুন: পুরীতে যাবেন? জানেন মোদী সরকার আপনার জন্যে কি ব্যবস্থা করছে?

প্রসঙ্গত, ডিএলএড স্বাধিকার রক্ষা কমিটির জলপাইগুড়ি জেলা কমিটির পক্ষ থেকে বিভিন্ন দাবি-দাবা নিয়ে পথে নামেন কমিটির সদস্যরা। শুক্রবার শহরের কদমতলা মোড়ে ডিএলএড-এর আন্দোলনকারীরা জমায়েত হয়।

এরপর সেখান থেকে একটি র‍্যালি বের হয়ে শহরের বিভিন্ন পথ পরিক্রমা করে জলপাইগুড়ি জেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় সংসদে হাজির হয়৷ আন্দোলনকারী ছাত্র-ছাত্রীরা জেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় সংসদে বেশ কিছুক্ষণ বিক্ষোভ দেখায়৷ পরে জেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় সংসদের সভাপতি তথা বর্তমানে দায়িত্বে থাকা ডিপিএসসি চেয়ারম্যান মৃন্ময় ঘোষের হাতে একটি স্মারকলিপি তুলে দেন। স্মারকলিপিতে মোট পাঁচ দফা দাবি জানানো হয়েছে। দাবিগুলির মধ্যে রয়েছে অবিলম্বে টেট পরীক্ষা নিতে হবে।

আরও পড়ুন: কার্তুজসহ প্রতিম চট্টোপাধ্যায়ের জামাইকে আটক পরে মুক্তি

সমস্ত ডিএলএড ডিগ্রিধারীদের ছয় মাসের একটি সেতু বন্ধন কোর্সের মাধ্যমে নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত শিক্ষকতার পরীক্ষায় বসতে দিতে হবে। সময়ের পরীক্ষা সময়ে নিতে হবে৷ এছাড়াও মোট পাঁচ দফা দাবি জানানো হয়।

এই প্রসঙ্গে আন্দোলনকারী কমিটি আহ্বায়ক সাম্য সরকার বলেন, ‘‘ডিএলএড ছাত্র-ছাত্রীদের সমস্যা বিষয়ে আমরা আন্দোলনে নেমেছি। আজ জেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় সংসদের সভাপতির কাছে এই স্মারকলিপি দেওয়া হয়। সম্প্রতি এনসিটিইএ-র তরফে এক বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে। এই বিজ্ঞপ্তিতে ডিএলএড শিক্ষার্থীদের অধিকারহরণ করা হয়েছে। অবিলম্বে সকল ডিএলএড শিক্ষার্থীদের টেট পরীক্ষায় বসার সুযোগ দিতে হবে।’’

আরও পড়ুন: মাধ্যমিকের সাফল্যের পরও শৈশবের স্মৃতিতে বুঁদ জয়

এই বিষয়ে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রয়োজনীয় হস্তক্ষেপের দাবি জানানো হয়েছে বলেও জানান তিনি। এদিকে জেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় সংসদে সভাপতি মৃন্ময় ঘোষ বলেন, ‘‘বিভিন্ন দাবি নিয়ে আমার কাছে একটি স্মারকলিপি দিয়েছেন ডিএলএড ছাত্র-ছাত্রীরা। জেলা থেকে এই সমস্যা সমাধান করা যাবে না। তাই আমরা তাদের দাবিগুলি উচ্চ আধিকারিককে পাঠানোর ব্যবস্থা করেছি।’’

----
--