রোষের মুখে রাহুল, দুষছেন নিজেকেই

দুবাই: কাঠগড়ায় লোকেশ রাহুল৷ আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে তাঁর ভুল রিভিউ নেওয়ার খেসারত দিতে হয়েছে ভারতীয় দলকে৷ ২১ তম ওভারে রশিদের বলে রিভার্স সুইপ মারতে গিয়ে এলবিডব্লিউ ছিলেন রাহুল৷যদিও আম্পায়ারের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে তড়িঘড়ি ডিআরএস চেয়ে বসেন ভারতীয় ওপেনার৷ পরে দেখা যায় আম্পায়ার নির্ভুল৷

এরপর ইনিংসের মাঝে ধোনিও দীনেশ আম্পায়ারের ভুল সিদ্ধান্তের শিকার হন৷ জাভেদের  বলে ৮ রানে এলবিডব্লিউ হন মাহি৷ পরে টিভি রিপ্লেতে ধরা পড়ে বল উইকেট ছোঁয়নি৷ সেসময় আর ডিআরএস নেওয়ার সুযোগ পাননি ধোনি-দীনেশরা৷ শেষ পর্যন্ত কোনরকমের হার বাঁচিয়ে ম্যাচ টাই করে ভারতীয় দল৷

আরও পড়ুন- শাস্তির ভয়ে আম্পায়ার বিতর্কে মুখ খুলতে নারাজ ধোনি

ধোনি বা দীনেশ কেউই আম্পায়ারের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে মন্তব্য করে শাস্তির মুখে পড়তে চাননি৷ কিন্তু সোশ্যাল মিডিয়ার নেজিটেনের সব রাগ গিয়ে পড়েছে রাহুলের উপর৷ অনেকেই লিখেছেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে এতগুলো বছর হয়ে যাওয়ার পরও রাহুল এখনও ডিআরএস নেওয়ার ক্ষেত্রে বুদ্ধিমত্তার পরিচয় রাখতে পারল না৷ সেই খেসারতই দিতে হল অন্যদের৷ বিশেষ করে ধোনি অনুরাগীরাই এমন ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন৷

রাহুল অবশ্য ম্যাচের শেষেই ভুল রিভিউ নেওয়ার জন্য ক্ষমা চেয়ে নিয়েছেন৷ রাহুল বলেন, ‘ওয়ান ডে ক্রিকেটে হাতে মাত্র একটি রিভিউ৷ যেকোনও ব্যাটসম্যানের পক্ষেই সিদ্ধান্তটা নেওয়া কঠিন৷ পরে মনে হয়েছে রিভিউয়ের সিদ্ধান্তটা না নিলেই হত৷ মাঠে অবশ্য সেই সময় মনে হয়েছিল বলটা স্টাম্প নাও ছুঁতে পারে৷ ম্যাচে সেসময় আমরা অ্যাডভান্টেজে ছিলাম৷ তাই একটা চান্স নিয়েছিলাম৷’

ভুল রিভিউ নিয়ে রোষের মুখে পড়লেও আফগান ম্যাচে কিন্তু ব্যাট হাতে ভরসা দিয়েছিলেন রাহুল৷ সুপার ফোরের শেষ ম্যাচে রশিদদের বিরুদ্ধে সেদিন দলের হয়ে সর্বোচ্চ স্কোরার ছিলেন ডান হাতি এই ব্যটসম্যান(৬০ রান)৷ রোহিত-ধাওয়ানের অনুপস্থিতিতে তৃতীয় ওপেনার হিসেবে দারুণ সফল রাহুল৷ মিশন ২০১৯ বিশ্বকাপের জন্য আশা জাগাচ্ছেন লোকেশ৷

---- -----