নিজস্ব সংবাদদাতা, জলপাইগুড়ি: বনদফতরের পাতা খাঁচায় বন্দি হল পূর্ণ বয়স্ক একটি পুরুষ চিতাবাঘ। রবিবার সকালে ঘটনাটি ঘটে মালবাজার মহকুমার নেপুচাপুর চা বাগানে । বেশ কিছুদিন ধরেই বাগানে চিতা বাঘের উপস্থিতি দেখতে পেয়েছিলেন কর্মীরা। বনদফতরকে বিষয়টি জানানো হলে তারা খাঁচা পাতে। এদিন সকালে চা শ্রমিকরা নিত্যদিনের কাজে যাবার সময় খাঁচা বন্দি অবস্থায় চিতাবাঘটিকে দেখতে পায়। এরপরই শ্রমিকরা বাগানের ম্যানেজারকে খবর দেয়। বাগান কর্তৃপক্ষ মালবাজার ওয়াইল্ড লাইফ স্কোয়াডকে ঘটনাটি জানায়। পরে ওয়াইল্ড লাইফ স্কোয়াডের কর্মীরা খাঁচা বন্দি চিতাবাঘটিকে উদ্ধার করে গরুমারা জঙ্গলে ছাড়ার উদ্দেশ্যে নিয়ে আসে।
পরিবেশ প্রেমী সংগঠনের সদস্যদের দাবি, এই মরশুমে স্ত্রী চিতাবাঘ শাবক জন্ম দিতেই চা বাগান এলাকায় চলে আসে। কিন্তু পুরুষ চিতাবাঘ স্বাভাবিকভাবে লোকালয়ে আসে খাবারের সন্ধানে। চা বাগানের বস্তি, আবাসন এলাকায় শ্রমিকদের পোষ্য হাস মুরগির লোভেই তারা শ্রমিক আবাসনে হানা দিয়ে থাকে। আর এই সমস্ত অঞ্চলে খাবারের যথেষ্ট যোগান থাকায় বন্য প্রাণীরা জঙ্গলে ফিরে যেতে চায় না বললেই চলে। বনাধিকারিক সুমিতা ঘটক বলেন, চিতাবাঘটি উদ্ধারের পর মাথায় ও মুখের কাছে সামান্য আঘাত লক্ষ্য করেছি, তাই প্রাথমিক চিকিৎসার করা হয়েছে। অনেকটা সুস্থ করার পরই চিতাবাঘটিকে গরুমারা জঙ্গলে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

----
--