রাজনৈতিক বিজ্ঞাপনে স্বচ্ছতা এনে নির্বাচন কমিশনকে সহায়তা করবে গুগল

নয়াদিল্লি: পাঁচ রাজ্যে বিধানসভা এবং পরের বছর লোকসভা ভোট আসন্ন৷ তারই পরিপ্রেক্ষিতে গুগল বৃহস্পতিবার জানিয়েছে, আরও বেশি স্বচ্ছতা আনা হবে তার প্ল্যাটফর্মকে ব্যবহার করা রাজনৈতিক বিজ্ঞাপনে৷ অনলাইন প্ল্যাটফর্মে ফেক নিউজ প্রচার নিয়ে দুনিয়াজুড়ে বিভিন্ন মহলে উদ্বেগ প্রকাশ করার পর এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে ৷

মার্কিন মুলুকে আইন প্রণয়নের কথা ভাবা হচ্ছে ফেসবুক গুগলের সাইটে যেসব তথ্য দেওয়া হচ্ছে তার স্পনসর অথবা রাজনৈতিক বিজ্ঞাপনের জন্য কতটা খরচ করা হয়েছে এবং কোন দর্শকদের জন্য এই বিজ্ঞাপন কাজে লাগান হচ্ছে৷

পড়ুন: ট্রেন ভাড়া করেই রাজধানীতে এসেছিলেন লঙ মার্চের কৃষকেরা

- Advertisement -

গুগলের মুখপাত্র সংবাদ সংস্থাকে জানিয়েছে, গোটা বিষয়টি চূড়ান্ত হওয়ার ক্ষেত্রে একেবারে প্রাথমিক আলোচনা স্তরে রয়েছে যাতে এই প্ল্যাটফর্ম ব্যবহারকারী রাজনৈতিক বিজ্ঞাপনের বিষয়ে আরও বেশি স্বচ্ছতা তুলে ধরা যায়৷ ফলে ভারতে রাজনৈতিক বিজ্ঞাপনের নীতি তৈরির কাজ চলছে এবং তা চূড়ান্ত হলে বিস্তারিত ভাবে জানান হবে৷

ওই মুখপাত্র জানিয়েছেন জোর দেওয়া হচ্ছে যাতে ভোটের ক্ষেত্রে সমন্বয় সাধন করে এই বিষয়ে ভারতের নির্বাচন কমিশনকে সহায়তা করা যায় ৷ গুগলের প্রতিনিধিসহ অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া ট্যুইটার ফেসবুক-এর প্রতিনিধিরা নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে দেখা করে এবং নির্বাচনের সময় তাদের ভূমিকা কেমন হবে তা নিয়ে আলোচনা করেছে৷

পড়ুন: সমকাম এখন অধিকার, এক নজরে কি এই ৩৭৭ ধারা

তবে নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে এই আলোচনায় বিষয়বস্তু কি ছিল তা বিস্তারিত ভাবে জানান হয়নি৷ তবে ফেসবুক ট্যুইটারের পাশাপাশি তারাও যে সম্মতি জানিয়েছেন, রাজনৈতিক বিজ্ঞাপনের দিকে নজর রাখা হবে এবং তা প্রচারের পাশাপাশি ফেক নিউজ ব্লক করে দেওয়া হবে আসন্ন ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনের সময়৷
পাঁচটি রাজ্য মধ্যপ্রদেশ, ছত্তিশগড়, রাজস্থান মিজোরাম এবং তেলেঙ্গনা বিধানসভায় এই বছরেই ভোট রয়েছে আর পরের বছর লোকসভা ভোট ৷ রিপোর্টে তারা সম্মতি জানিয়েছেন, ভোটের আগে ৪৮ঘন্টা পর্যবেক্ষণ করবেন বিজ্ঞাপনটি অনলাইনে যাওয়ার আগে৷

Advertisement
---