মুম্বই: ফের শহরে রমরমিয়ে চলা দেহব্যবসার পর্দাফাঁস করল পুলিশ৷ মুম্বইয়ের অভিজাত এলাকা সাবেড়িতে এই দেহব্যবসার খোঁজ পায় পুলিশ৷ খবর পেয়ে সেখানে উপস্থিত হয় আহমেদনগর পুলিশ৷ একটি বাংলোতে হাতেনাতে ধরা পড়ে চার মহিলা সহ দুই পুরুষ৷

প্রাথমিক খবরের ভিত্তিতে জানা গিয়েছে, গোপন সূত্রে খবর পেয়েই মহাবীরনগরের সাবেড়ি এলাকার ওই বাংলোতে হাজির হয় পুলিশ৷ সেখানে জমিয়ে চলছিল দেহব্যবসা৷ এই অভিজাত কলোনিতে চিকিৎসকেরাও যেমন রয়েছেন, তেমন এখানে একটি হাসপাতালও রয়েছে৷ এমন স্থানে এই ধরণের ব্যবসার ফাঁদ পেতে কেউ বসতে পারে তা অনেকেই ভাবতে পারেনি৷

ফাইল ছবি

রত্নপ্রভা বাংলো থেকে মোট ছয় জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ৷ ওই চার মহিলার কেউই মহারাষ্ট্রের বাসিন্দা নন বলে জানা গিয়েছে৷ এদের সকলের বিরুদ্ধেই অভইযোগ দায়ের করা হয়েছে৷

ফাইল ছবি

এদিকে, গত সপ্তাহে, গুরুগ্রামেও দেহব্যবসায় জড়িত অনেককে গ্রেপতার করে পুলিশ৷ স্পা-এর আড়ালে রমরমিয়ে চলছিল ওই দেহব্যবসার কাজ৷ তাও আবার গুরুগ্রামের এমজি রোডের ওপরে অবস্থিত সাহারা মলের মধ্যে৷ বুধবার এই সব অবৈধ কাজকর্মের জন্য পুলিশ সেখানে উপস্থিত হয়ে হাতেনাতে ৫ তরুণী সহ ওই স্পা-এর ম্যানেজারকে গ্রেফতার করে৷

ফাইল ছবি

গোপনসূত্রে খবর পেয়ে পুলিশ গ্রাহকের বেশে ওই স্পা-এ হাজির হয় বলে জানান মেট্রো পুলিশ স্টেশন, স্টেশন হাউস অফিসার পুনম হুডা৷ তিনি জানান, ধৃত ওই পাঁচ তরুণীর প্রত্যেকেরই বয়স ২০-২৫-এর মধ্যে৷ ১৯৫৬-এর ইমমরাল ট্রাফিকিং(প্রিভেনশন) অ্যাক্টের বিভিন্ন ধারায় এফআইআর দায়ের করেছে পুলিশ৷

--
----
--