মাঝেরহাটের হিট জুটি ম্যাক্স ও রোমিও

সোয়েতা ভট্টাচার্য, কলকাতা: লেজ নাড়তে নাড়তে জিভ বার করে কখনও হাল্কা মেজাজে৷ পরক্ষণেই আবার কর্তব্য পালনে চরম ব্যস্ততা৷ ধ্বংসের মাঝে ওরাই এখন ‘হিট জুটি’৷ ওরা ম্যাক্স ও রোমিও৷ জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা দলের দুই কর্মী৷ ভয়াবহ মাঝেরহাট সেতু বিপর্যয়ের পর উদ্ধার কাজ কোন দিক থেকে শুরু হবে তার হদিশ পেতেই এই দুই কুকুরকে কাজে নামায় এনডিআরএফ৷

মঙ্গলবার সন্ধা থেকে রাত৷ রাত পেরিয়ে ভোর৷ বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে নিরলস পরিশ্রম করে গিয়েছে ম্যাক্স ও রোমিও৷ এই চারপেয়েদের দেখানো পথেই বুধবার ভোররাতে একবালপুরের দিক থেকে শুরু হয় সেতুর ধবংসস্তুপ সরানোর কাজ৷ তাই পুলিশ, সেনা, এনডিআরএফ বাহিনীর মত এই দুই সারমেয়রও ভূমিকাও যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ৷

- Advertisement -

বিগত আড়াই বছর ধরে ম্যাক্স আর রোমিও এনডিআরএফ বাহিনীর সদস্য৷ তবে কাজের নিয়োগ পেতে তাদেরও কম পরীক্ষা দিতে হয়নি৷ প্রথম ছয়’মাস ম্যাক্সকে দিল্লি ও রোমিওকে ভূবনেশ্বরে প্রশিক্ষণ নিতে হয়েছে৷ তারপর পরীক্ষায় পাশ করে পাকা চাকরি পাওয়া৷ এখন তাদের ঠিকানা উত্তর২৪ পরগনার হরিনঘাটা৷ সেখান থেকেই মাঝেরহাটে কাজে আসে রোমিও ও ম্যাক্স৷

বাহিনীতে তারা দু’জনেই সবার অত্যন্ত প্রিয়৷ রোমিও কালো খয়রি মেশানো অ্যালশেসিয়ন৷ তাই ওর ভালোবাসার নাম ‘কালু’৷ ম্যাক্স সোনালী রঙের৷ সহকর্মী এই দুই চারপেয়েকে নিয়ে বেজায় গর্ব তাদের সহকর্মীদের৷
কয়েক ঘন্টা ধ্বংসস্তুপের পাসে থাকলেও তাদের আদপ কায়দায় মজে সবাই৷ কেউ কেউ আবার খুনসুটিতে মজেছে ওদের সঙ্গে৷ মাঝেরহাটে কয়েক ঘন্টার হিট জুটি ম্যাক্স ও রোমিও৷

Advertisement
---