গোরু নিয়ে বিবাদে হাত কাটা গেল ব্যক্তির

ফাইল ছবি

ভোপাল: গোরু নিয়ে বিবাদের জের৷ গাছের সঙ্গে বেঁধে হাত কাটা হল এক ব্যক্তির৷ শিউরে ওঠার মতো ঘটনাটি মধ্যপ্রদেশের৷ সঙ্কটজনক অবস্থায় প্রেম নারায়ণ সাহুকে(৩৫) হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে৷ অভিযুক্ত প্রতিবেশী সত্তু যাদব ও তাঁর পরিবার৷ এই ঘটনায় দু’জনকে গ্রেফতার করা হলেও তিনজন ফেরার৷

আরও পড়ুন: কর্ণাটক: কংগ্রেসের বিজয় মিছিলে ভয়াবহ অ্যাসিড হামলা

তিনদিন ধরে প্রেম নারায়ণ সাহুর গোরু নিখোঁজ৷ সন্দেহ গিয়ে পড়ে সত্তু যাদবের উপর৷ রবিবার তলোয়ার হাতে সটান সত্তু যাদবের বাড়িতে চলে যান সাহু৷ দু’জনের মধ্যে বাধে বিবাদ৷ অভিযোগ, এরপরই সত্তু যাদবের পরিবার সাহুকে ধরে গাছের সঙ্গে বেঁধে দেয়৷ মারধরের পর সাহুর তলোয়ার দিয়েই তাঁর ডান হাত কেটে দেওয়া হয়৷ বা’হাতে পড়ে তলোয়ারের কোপ৷ যন্ত্রণায় ছটফট করতে থাকেন সাহু৷ সাহায্যের জন্য চিৎকার করেন৷ গ্রামবাসীরা ছুটে এলেও সাহুকে বাঁচানোর বদলে ব্যস্ত ছিল ঘটনার ভিডিও করতে৷

- Advertisement -

সেই ভিডিওতেই দেখা গিয়েছে, মেঝেতে ভরে গিয়েছে রক্ত৷ সেখানে শুয়ে যন্ত্রণায় কাতরাচ্ছেন সাহু৷ ততক্ষণে পুলিশকে খবর দেয় গ্রামবাসীরা৷ তারা এসে সাহুকে সঙ্কটজনক অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে যায়৷ নিয়ে যাওয়া হয় সাহুর কাটা ডান হাতটিও৷

আরও পড়ুন: মুখ্যমন্ত্রীর গাড়ি লক্ষ্য করে পাথর

ইতিমধ্যে এই ঘটনায় দু’জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ৷ কিন্তু তিন জন এখনও নিখোঁজ৷ গোটা পরিবারের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির খুনের ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে৷ বাকিদের খোঁজে তল্লাশি চলছে৷

Advertisement
---