৮ সেপ্টেম্বর জরুরি মিটিং, ঘোষণা হবে পরবর্তী সভাপতি

স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: জল্পনা ছিল ছাত্র পরিষদের প্রতিষ্ঠা দিবসের মঞ্চেই ঘোষণা হতে পারে টিএমসিপি সভাপতির নাম৷ কিন্তু তার পরিবর্তে হলো উল্টোটাই৷ তৃণমূল ছাত্র পরিষদের নতুন সভাপতি বা সভানেত্রীর নাম ঘোষণা করলেন না তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ তার পরিবর্তে প্রাক্তন সভাপতিদের নিয়ে একটি কমিটি তৈরির কথা ঘোষণা করলেন৷ ৮ সেপ্টেম্বর এই কোর কমিটির জরুরি মিটিং হওয়ার কথা তৃণমূল ভবনে৷ এবং সেই আলোচনা পর্বের পরই ঘোষণা করা হবে টিএমসিপির পরবর্তী সভাপতির নাম৷

তৃণমূল সূত্রে খবর, এবার আর কোনও একজনের হাতে ছাত্র সমাজের দায়িত্ব ছাড়তে রাজি নন দলনেত্রী৷ তাই আজ ছাত্র দিবসের প্রতিষ্ঠা মঞ্চ থেকেই তিনি ঘোষণা করেন, প্রাক্তন ও বর্ষীয়ান টিএমসিপি নেতা যোমন, অশোক রুদ্র, বৈশ্বানর চট্টোপাধ্যায় ও তাপস রায় কে নিয়ে গঠিত হবে কর কমিটি৷ এদের পরিচালনার দায়িত্বে থাকবেন দলের শীর্ষ নেতারা৷ মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়, তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সভাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় ও দলের সম্পাদক সুব্রত বক্সি৷ আগামী ১৫ দিনের মধ্যে এরাই আলোচনা করে ঘোষণা করে দেবে কে বসবে ছাত্র সমাজের মাথায়৷

এখন প্রশ্ন হল টিএমসিপির পরবর্তী সভাপতি কে হতে চলেছে? এদিনের সভামঞ্চে বক্তব্য রাখতে দেখা গেছে রুমানা আখতার, লগ্নজিতা ও বারাসতের ত্রিবাঙ্কুর ভট্টাচার্য কে৷ এদের মধ্যে দু’জন রুমানা ও লগ্নজিতা সভাপতি হওয়ার দৌড়ে রয়েছে৷ তৃণমূলের অন্দরের খবর, দল আসলে দেখতে চেয়েছিল, কে কতটা ভালো বক্তব্য রাখতে পারে৷ আর তা দেখেই বিচার করা হবে কার ভালো নেতৃত্ব দেওয়ার ক্ষমতা রয়েছে৷ এর মধ্যে রুমানা কিছুটি হলেও মান রেখেছে দলের৷ কিন্তু লগ্নজিতা স্ক্রিপ্ট দেখে বলতে গিয়েও বারবার হোঁচট খেয়েছেন৷ কিন্তু তবুও নাকি মুখ্যমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রীর গুডবুকে রয়েছেন লগ্নজিতা৷

- Advertisement -

প্রক্তন সভানেত্রী জয়া দত্তকে পদ থেকে অপসারণের পর বারবার এই লগ্নজিতাকে মহাসচিবের বাড়িতে দেখা গেছে৷ বিভিন্ন সময়ে তিনি পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের বাড়িতে গিয়ে তাঁর সঙ্গে দেখা করে এসেছেন৷ সেক্ষেত্রে লগ্নজিতাই কি তাহলে টিএমসিপির পরবর্তী সভানেত্রী? না কি অন্য কেউ৷ এই জল্পনার অবসান আজও হল না, বরং রীতিমত জিইয়ে রাখলেন দলনেত্রী নিজেই৷ এখন শুধুই সময়ের অপেক্ষা৷ আগামী ৮ সেপ্টেম্বর কি হবে সে দিকেই তাকিয়ে গোটা ছাত্র সমাজ৷

Advertisement ---
---
-----