সুষমার হয়ে ব্যাট ধরলেন মেহেবুবা মুফতি

শ্রীনগর: ট্যুইটারে বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজককে ট্রোল করার ঘটনা অনেকদিনের৷ সেই ট্যুইট হেনস্থায় বিরক্তও হয়েছেন সুষমা৷ ট্যুইট ট্রোলকে সামনে রেখেই এবার সুষমার সমর্থনে ব্যাট ধরলেন পিডিপি সুপ্রিমো মেহেবুবা মুফতি৷ ট্রোলারদের উদ্দেশ্য করে মুফতির প্রতিবাদ,‘এই ট্রোল ভয়ানক৷ বিদেশ মন্ত্রীই পার পাচ্ছেন না, তাহলে দেশের মহিলারা কীভাবে সুরক্ষিত থাকবেন৷’ মেহেবুবার ট্যুইট ছিল সুষমার সমর্থনে পুরোপুরি মহিলা নিরাপত্তাকের উদ্দেশ্য করে৷

সুষমার ট্যুইট হেনস্থার তীব্র নিন্দা করে পাল্টা ট্যুইট করেন মুফতি৷ সুষমাকে সমর্থনের পাশপাশি তাঁর বিরুদ্ধে করা ট্যুইটগুলির জবাবও দেন৷ জানান, কেন সুষমা স্বরাজকে টার্গেট করা হচ্ছে? মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন তিনি, তাহলে কেন এই হেনস্থা? মুফতির ট্যুইটকে সমর্থন করেছেন সুষমা স্বরাজও৷

ঘটনার সূত্রপাত পাসপোর্ট অফিসে মুসলিম দম্পতিকে হেনস্থার প্রতিবাদ করতে গিয়ে৷ অভিযোগ লখনউ অফিসে পাসপোর্ট করাতে যান তনভি শেঠ ও তাঁর স্বামী মহম্মদ সিদ্দিকি৷ দম্পতিকে পাসপোর্ট দেওয়া হবে না বলে জানায় পাসপোর্ট অফিস৷ মুসলিম হওয়া সত্ত্বেও তনভি নিজের পদবি বদলাননি৷ সেই কারণেই পাসপোর্ট পাবেন না ওই দম্পতি বলে জানায় পাসপোর্ট অফিস৷ ট্যুইটারে বিদেশমন্ত্রীকে বিষয়টি জানান ওই দম্পতি৷ সঙ্গে সঙ্গেই তৎপর হন সুষমা৷ তড়িৎগতিতে বদলি হয় ওই আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের আধিকারিকের৷ পাসপোর্টও পেয়ে যান মুসলিম দম্পতি৷ গোটা ঘটনায় মিশ্র প্রতিক্রিয়ার সম্মুখীন হন সুষমা৷ বিষয়টি মেনে নিতে পারেনি সুষমার সমর্থকরাও৷ মন্ত্রীকে নিয়ে নানা কটূক্তি শুরু হয়৷

ইউরোপ সফর থেকে দেশে ফেরার পর ট্রোলের বিষয়ে অবগত হন মন্ত্রী৷ দেরি না করেই বিষয়টির উপর ভোটাভোটির কথা বলেন৷ ট্যুইটারে জনতার মতামত চান সুষমা৷ বিরাট অংশের মানুষ সুষমাকে সমর্থনও করেন৷ সেই সমর্থনের তালিকায় যদিও প্রথমেই রয়েছেন জম্মু-কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মেহেবুবা মুফতি৷ বিজেপি-পিডিপি ভাঙনকে একদিকে রেখেই ব্যক্তি সুষমার পাশে দাঁড়ালেন মুফতি৷

Advertisement
---
-----