ডাকঘরে অব্যবস্থা, প্রতিবাদে অবস্থানে গ্রাহকরা

স্টাফ রিপোর্টার, বাঁকুড়া: ডাকঘরে যাওয়া মানেই সময় নষ্ট৷ ন্যুনতম পরিষেবার বালাই নেই৷ জমা আমানতের নির্দিষ্ট সময়সীমা পেরিয়ে গেলেও তা হাতে পান না গ্রাহকরা৷ বিভিন্ন অজুহাতে ডাকঘর কর্ত্তৃপক্ষ সেই টাকা দিতে বিলম্ব করে বলে অভিযোগ৷ বিগত কয়েক মাস ধরে এইসব সহ্য করে আসছেন বাঁকুড়ার কেঞ্জাকুড়ার মানুষ৷ এদিন সহ্যের সীমা ছাড়ালে প্রতিবাদী হয়ে ওঠেন তারা৷ মঙ্গলবার ডাকধর আটকে অবস্থান বিক্ষোভে সামিল হন গ্রাহকরা৷

এর আগে আবেদন নিবেদনে কাজ হয়নি৷ উল্টে জুটেছে ডাকধর কর্মীদের বাজে ব্যবহার৷ এদিন তাই কেঞ্জাকুড়ার ডাকঘরের গ্রাহকরা দল বেঁধে সামিল হন আন্দোলনে৷ গ্রাহকদের অবস্থানের জেরে ডাকঘরের কর্মীরাও বাইকরে দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে ফিরে যেতে বাধ্য হন৷

- Advertisement -

বিক্ষোভে কথা পৌঁছায় বাঁকুড়া প্রধান ডাকঘরের হেড পোষ্ট মাস্টার প্রণবানন্দ চন্দ্রের কাছে৷ পুরো বিষয়টি খতিয়ে দেখার আশ্বাস দিয়েছেন তিনি। একই সঙ্গে জানিয়েছেন কেঞ্জাকুড়া ডাকঘরটি ভালভাবে দ্রুত চালুর ব্যবস্থা হচ্ছে৷

তবে এই আশ্বাসে ছিঁড়ে ভিজছে না৷ কয়েকদিনের মধ্যে অবস্থার বদল না হলে বৃহত্তর আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দিয়েছেন কেঞ্জাকুড়া ডাকধরের গ্রাহকরা৷

Advertisement
---