জয়পুর: দীর্ঘ দুই সপ্তাহ নিখোঁজ থাকার পরে অবশেষে খোঁজ মিলল ফরাসী যুবতীর। আইফেল টাওয়ারের দেশ থেকে আগত যুবতী নিরাপদেই রয়েছেন বলে ট্যুইট করে জানাল রাজস্থান পুলিশ।

চলতি মাসের প্রথম দিন থেকে নিখোঁজ ফ্রান্সের যুবতী গ্যালে চৌতে। বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে বৃহস্পতিবার সকালের দিকে। এদিন সকালে ফরাসী রাষ্ট্রদূত মেয়েটির ছবি ট্যুইট করে জানায় যে তাঁকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না।

- Advertisement -

আরও পড়ুন- রাজস্থানের উপনির্বাচনের ফলে উচ্ছ্বসিত গেরুয়া শিবির

সেই ট্যুইটের উপর ভিত্তি করে আসরে নামে রাজস্থান পুলিশ। ফরাসী রাষ্ট্রদূতের করা ট্যুইট শেয়ার করা হয় রাজস্থান পুলিশের ট্যুইট অ্যাকাউন্ট থেকেও। প্রাথমিকভাবে জানা গিয়েছিল যে মেয়েটির নাম গ্যালে চৌতে। ২১ বছর বয়সী ওই যুবতীর উচ্চতা পাঁচ ফুট তিন ইঞ্চি। গত মাসের অন্তিম দিনে তিনি পুস্কর এলাকার ‘হোলি কা চক’ নামের একটি হোটেলে ছিলেন।

ফরাসী রাষ্ট্রদূতের বক্তব্য অনুসারে, পুস্কর থেকে জয়পুর যাওয়ার পরিকল্পনা করেছিলেন যুবতী গ্যালে চৌতে। কিন্তু, পুস্কর ত্যাগ করার পরে তার সম্পর্কে আর কোনও তথ্য পাওয়া যাচ্ছে না। উদ্বিগ্ন বন্ধুরা এই নিখোঁজের বিষয়টি দূতাবাসে জানায়। মোবাইল বা এটিএম ব্যবহার না করার কারণে নিখোঁজ যুবতী-র অবস্থান সম্পর্কে কিছুই জানা বা বোঝা সম্ভব হচ্ছিল না পুলিশের।

আরও পড়ুন- বাজ পড়ে নষ্ট কম্পিউটার, ব্যাহত সরকারি পরিষেবা

পুস্করের যে হোটেলে ওই যুবতী ছিলেন তদন্তের স্বার্থে সেখানে যায় পুলিশ। হোটেল কর্মীদের জেরা করে জানা যায় যে আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে তিনি ফের ওই হোটেলে ফিরবেন বলে জানিয়েছিলেন গ্যালে চৌতে। সেই অনুসারে বৃহস্পতিবার বা শুক্রবারে ফের পুস্কর আসার কথা তাঁর। সেটাই ছিল একটা আশার আলো। একই সঙ্গে পুলিশ আরও জানতে পরে যে ‘হোলি কা চক’ হোটেলের কর্মীদের কাছে আলোয়ারের তাপুকরা এলাকা সম্পর্কে খোঁজখবর নিয়েছিলেন গ্যালে চৌতে।

সেই সূত্রের উপর ভিত্তি করে নিখোঁজ গ্যলে চৌতেকে খুঁজতে আসরে নামে আলোয়ার পুলিশ। আর তাতেই আসে সাফল্য। আলোয়ারের চৌপাঙ্কি থানা এলাকার একটি ফার্ম হাউসে খোঁজ পাওয়া যায় ওই ফরাসী যুবতীর। এদিন বিকেলের পরে আলোয়ার পুলিশের আধিকারিক সুনীল জাঙিড় জানান যে নিখোঁজ গ্যালে চৌতে-কে নিরাপদ এবং সুরক্ষিত অবস্থায় চৌপাঙ্কি থানা এলাকার একটি গ্রামের ফার্ম হাউস থেকে উদ্ধার করা হয়েছে।

----