আগ্রা: বিজেপি বিরোধী মহাজোটকে কটাক্ষ করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। একই সঙ্গে আক্রমণ করলেন মহাজটে অংশ নেওয়া সকল অবিজেপি রাজনৈতিক দলের নেতাদের।

বুধবার উত্তর প্রদেশের আগ্রায় একগুচ্ছ প্রকল্পের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সেই অনুষ্ঠান মঞ্চ থেকেই বিজেপি বিরোধী দলগুলিকে একযোগে আক্রমণ করেন প্রধানমন্ত্রী।

২০১৪ সালের লোকসভা নির্বাচনের সময়ে বিজেপির প্রধান মুখ ছিলেন নরেন্দ্র মোদী। বিজেপি তাঁকে প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী করলে এনডিএ সঙ্গ ত্যাগ করেন জেডিইউ নেতা তথা বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতিশ কুমার।

বিহারে বিজেপিকে রুখতে নীতিশের সঙ্গে হাত মেলান আরজেডি প্রধান লালু প্রসাদ যাদব। যারা রাজনীতির ময়দাবে যুযুধান ছিলেন। তাঁদের জোটে সামিল হয়েছিলেন কংগ্রেস সহ একাধিক রাজনৈতিক দলের নেতা। সেই জোটকে মোদী বিরোধী মহাজোট বলে দাবি করেছিলেন লালু-নীতিশ। এই জোটকে সমর্থন করেছিল আম আদমি পার্টি, তৃণমূলের মতো আঞ্চলিক রাজনৈতিক দল।

বছর খানেক পরে সেই মহাজোট থেকে বেরিয়ে আসেন নীতিশ। ফের এনডিএ শিবিরে যোগ দিয়ে বিহারের মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন তিনি। তবে সেই বিজেপি বিরোধী মহাজোট এখনও অটুট রয়েছে। যা বিহারেরভ বাইরেও বিস্তার লাভ করেছে। আগামী লোকসভা নির্বাচনেও মহাজোট একসঙ্গে লড়াই করার পরিকল্পনা করেছে। এই নিয়ে বিভিন্ন রাজ্যে অবিজেপি রাজনৈতিক দলের মধ্যে আসন সমঝোতাও হয়ে গিয়েছে।

এই সবকিছুর লক্ষ্য একটাই। সকলেরই উদ্দেশ মোদীকে পরাস্ত করা। কোনোভাবেই আরও পাঁচ বছর মোদীকে প্রধানমন্ত্রীর গদিতে বসতে দেওয়া যাবে না। এই বিষয়ে নরেন্দ্র মোদী বলেছেন, “যারা পস্পরের মুখ দেখতো না, তারা চৌকিদারের দিকে তাকাতে ভয় পাচ্ছে। ওরা স্থির করেছে যা হওয়ার হবে আগে চৌকিদারকে সরাতে হবে।” একই সঙ্গে মোদী আরও বলেন, “যতক্ষণ এই চৌকিদার রয়েছে ততক্ষণ কেউ লুঠ করতে পারবে না।”

--
----
--