মুম্বই: ক্যান্সারের অবসাদে আত্মহত্যা করেননি সুপার কপ হিমাংশু রায়৷ এমনই দাবি হিমাংশুর চিকিৎসক, অঙ্কোলজিস্ট রাজ নাগারকরের৷ তাঁর মতে দীর্ঘদিন ধরে ক্যান্সারে ভুগলেও, শেষের দিকে সেরে উঠছিলেন তিনি৷

তাই ক্যান্সারের জন্য তিনি অবসাদে ভুগছিলেন এই তথ্য সম্পূর্ণ ভুল৷ চিকিৎসক নিজে বলছেন পুলিশ এই মৃত্যু ঘিরে অহেতুক জটিলতা বাড়াচ্ছে, আর ভুল তথ্য সরবরাহ করছে৷

আরও পড়ুন: মোরিনহোর সঙ্গে ১৭ বছরের সম্পর্কে ইতি!

মহারাষ্ট্রের সন্ত্রাসদমন শাখার প্রাক্তন প্রধানের মৃত্যু ঘিরে ক্রমশ বাড়ছে ধোঁয়াশা৷ পুলিশের বক্তব্য এই মৃত্যুর পিছনে রয়েছে ক্যান্সারের জন্য হতাশা৷ তবে খোদ চিকিৎসকের বয়ান সব সমীকরণ উলটে দিচ্ছে৷ তিনি পরিস্কার জানিয়েছেন, ক্যান্সারের জন্য মোটেই অবসাদে ভুগছিলেন না হিমাংশু রায়৷

এক সংবাদ মাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এমনই দাবি করেন ওই অঙ্কোলজিস্ট৷ হিমাংশু রায়ের সঙ্গে নিজের কথোপকথনের কিছু অংশ উদ্ধৃত করেছেন তিনি৷ হিমাংশু রায় নিজের কাজে ফেরার ব্যাপারে আশাবাদী ছিলেন বলে জানিয়েছেন চিকিৎসক৷ ওষুধে বেশ ভালো কাজ দিচ্ছিল বলে জানা গিয়েছে৷ ক্রমশ তাঁর শারীরিক অবস্থার উন্নতি হচ্ছিল বলেও ওই চিকিৎসক জানিয়েছেন৷

আরও পড়ুন: বজ্রপাতে চার শিশু-সহ মৃত্যু ছ’জনের

--
----
--