স্বাধীনতা দিবসে উড়বে ৪০০ ফুটের জাতীয় পতাকা

স্টাফ রিপোর্টার, বহরমপুর: রাত পোহালেই স্বাধীনতা দিবস৷ আর দেশের ৭২ তম স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে ইতিমধ্যেই সেজে উঠেছে গোটা এলাকা৷ তবে এই বছর স্বাধীনতা দিবসকে আলাদা মাত্রা দিতে মুর্শিদাবাদের জিয়াগঞ্জে উড়বে প্রায় ৪০০ ফুটের জাতীয় পতাকা৷

প্রসঙ্গত, প্রতি বছরই স্বাধীনতা দিবসের দিন অভিনবত্বের ছোঁয়া নিয়ে আসে মুর্শিদাবাদের জিয়াগঞ্জের কেয়ার অ্যাকাডেমি৷ এই বছরও তার অন্যথা হয়নি৷ বুধবার দেশের স্বাধীনতা দিবসে সামিল হবেন আপামর দেশবাসী৷ তাই স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে মেতে উঠবে ঐতিহাসিক জেলার মানুষরাও৷

আরও পড়ুন: হেলমেট ছাড়াই বাইকে, ফাইন দিতে হল এই অভিনেতা-অভিনেত্রীকে

- Advertisement -

এই অ্যাকাডেমি প্রায় প্রতি বছরই স্বাধীনতা দিবসে কিছু অভিনবত্ব নিয়ে আসে৷ কখনও সমাজ সচেতনতার বার্তা দেওয়া তো আবার কখনও সামাজিক কাজে এগিয়ে আসা। এবার তাদের স্বাধীনতা দিবসে ৪০০ মিটার দীর্ঘ এই জাতীয় পতাকা নিয়ে জিয়াগঞ্জ শহর পরিক্রমার ভাবনা।

উল্লেখ্য, লম্বায় ৪০০ মিটার এবং চওড়ায় প্রায় ১০ ফুট জাতীয় পতাকা তৈরির কাজ প্রায় শেষ। স্থানীয় দরজি অজিত শেখের হাতের ছোঁয়ায় তৈরি হচ্ছে এই বিশালাকার পতাকা। এছাড়াও এই কাজে হাত লাগিয়েছে অ্যাকাডেমির ছাত্র-ছাত্রীরাও। সদর শহর বহরমপুর থেকে কাপড় কিনে এনে প্রায় সপ্তাহ খানের ধরে এই পতাকা তৈরির কাজ চলেছে৷ তবে এর পরিবর্তে কোনও পারিশ্রমিক নেবেন না দরজি অজিত শেখ আগেই জানিয়েছিলেন।

আরও পড়ুন: মোদীর খাসতালুকে অবহেলার অভিযোগ পাক-হিন্দু শরণার্থীদের

আগামী কাল তথা বুধবার সকালে এই পতাকা নিয়ে জিয়াগঞ্জ শহর পরিক্রমা করবে ছাত্র-ছাত্রীরা। সঙ্গে থাকবে ব্যান্ড ও প্যারেডের ছন্দ৷ তবে জেলায় এই প্রথম বিশালাকার জাতীয় পতাকা নিয়ে উৎসুক এলাকার মানুষ থেকে শুরু খুদেরা৷

এক সময়ের বাংলা-বিহার-ওড়িশার নবাবের জেলায় বুধবার উড়তে চলেছে এই ৪০০ মিটারের জাতীয় পতাকা। এলাকাবাসীর দাবি, রাত পোহালেই আরও একবার ইতিহাসের সাক্ষী হতে চলেছেন ঐতিহাসিক জেলার মানুষরা।

আরও পড়ুন: BreakingNews- প্রকাশ্যে সরকারি কর্মীকে গুলি করে খুন

Advertisement ---
---
-----