জুরিখ: আগামী মাস থেকেই ভারতের বাজারে ফের ম্যাগি বিক্রি চালু করতে চায় সুইস সংস্থা নেসলে। কোম্পানির তরফে সোমবার জানানো হয়েছে, “সংস্থার বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে আগামী মাস থেকেই ভারতে ম্যাগির বিক্রি চালু করা হোক।” তিনটি ল্যাবরেটরির পরীক্ষাতেই উত্তীর্ন হওয়ার পর সংস্থা এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে খবর। তবে কোম্পানির ধারনা, প্রথমে ভারতের বাজার ধরতে খানিকটা সমস্যায় পড়তে হবে ম্যাগিকে। গত সপ্তাহেই নেস্‌লের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়, সমস্ত পরীক্ষায় পাশ করে ম্যাগি বর্তমানে নিরাপদ।

নেস্‌লের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, বোম্বে হাইকোর্টের নির্দেশে তিনটি ল্যাবরেটরিতেই ম্যাগির নমুনা পরীক্ষা করানো হয়। তিনটিতেই সম্প্রতি তৈরি ছ’প্রকার ম্যাগির মোট ৯০ টি নমুনা পরীক্ষা করা হয় এবং প্রত্যেকটিই ভালোভাবে উত্তীর্ণ হয়। বর্তমানে ম্যাগিতে সিসার পরিমাণ যথেষ্ট কম এবং এটি খাওয়ার উপযোগী বলে ল্যাবরেটরিতে প্রমাণিত হয়েছে। এছাড়া সাড়ে তিন হাজারেরও বেশি স্বাদের ২০০ মিলিয়ন ম্যাগির প্যাকেট জাতীয় ও আন্তর্জাতিক ল্যাবরেটরিতে পরীক্ষা করা হয়েছে এবং সবকটির রিপোর্টই ভালো বলে নেস্‌লের দাবি। তাই আগামী মাসেই ম্যাগিকে বাজারে আনা যেতে পারে। শুধু ভারত নয়, আমেরিকা, অস্ট্রেলিয়া, লন্ডন, সিঙ্গাপুর-সহ সমস্ত জায়গাতেই পুনরায় ম্যাগি পাওয়া যাবে বলে তাঁরা জানান।

Advertisement

প্রসঙ্গত, ভারত, আমেরিকা, অস্ট্রেলিয়া, লন্ডন, সিঙ্গাপুর-সহ বিশ্বের অধিকাংশ দেশেই ম্যাগি জনপ্রিয় খাবার। কিন্তু ম্যাগিতে সিসার পরিমাণ মাত্রাধিক এবং সেটি খাবারের অনুপযুক্ত বলে চলতি বছরের জুনে অভিযোগ ওঠে। এই অভিযোগের ভিত্তিতে খাদ্য নিরাপত্তা স্ট্যান্ডার্ড অথরিটি বা এফএসএসআই ম্যাগিকে ‘বিপজ্জনক’ বলে ঘোষণা করে। বাজার থেকে ম্যাগি তুলে নেওয়ার নির্দেশ দেয়। সারা দেশে ম্যাগির ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। যদিও এফএসএসআইয়ের নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে বোম্বে হাইকোর্টে যায় নেস্‌লে। তারপর বউ পরীক্ষার পর আদালতের নির্দেশেই নির্দিষ্ট তিনটি ল্যাবরেটরিতে পুনরায় ম্যাগির নমুনা পরীক্ষা করার সুযোগ পায় নেস্‌লে। সমস্ত অভিযোগ উড়িয়ে এই তিনটি ল্যাবরেতরিতেই পাশ করল ম্যাগি।

----
--