নয়াদিল্লি: নতুন বছর শুরু আগেই প্রায় ২০ লক্ষ সরকারী কর্মীদের বড়সড় উপহার বিজেপি সরকারের পক্ষ থেকে৷ মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী দেবেন্দ্র ফড়ণবীশের সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ২০১৯ থেকে রাজ্যের সরকারী কর্মচারীদের 7th pay commission-এর ভিত্তিতেই বেতন দেওয়া হবে বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার৷

সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত খবর থেকে জানা যায়, এরই সঙ্গে ৩৬ মাসের এরিয়ারও পাবেন কর্মচারীরা৷ তবে এতে সরকারী কোষাগারে ৪০ হাজার কোটি টাকার চাপ বাড়বে বলেও জানা গিয়েছে৷

পড়ুন: লক্ষ্মীবারের ডিএ নিয়ে বড়সড় সুখবর শুনবেন রাজ্য সরকারি কর্মীরা?

এর আগে কে পি বকসির নেতৃত্বে একটি কমিটি গঠন করা হয়েছিল৷ তবে কর্মীদের বিক্ষোভের বিষয়টি মাথায় রেখে ৯ অগস্ট থেকে গভর্ণমেন্ট এমপ্লয়ি, সেমি-গভর্ণমেন্ট এমপ্লয়ি এবং শিক্ষক নিয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন শুরু করে৷ কর্মীদের বিক্ষোভের কথা মাথায় রেখেই সেই কমিটির রিপোর্ট আসা পর্যন্ত আর অপেক্ষা করা হবে না বলে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়৷

এরপর রাজ্যের অর্থমন্ত্রী দীপক খেসরকর সরকারের এই সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করেন৷ ২০১৬ থেকে ধরলে ৩৬ মাসের এরিয়ারও পাবেন সরকারী কর্মচারীরা৷

পাশাপাশি এও বলা হয়, পাঁচ সপ্তাহের মধ্যে ১০হাজার কোটির(২০১৬থেকে) বন্টন করা হবে৷ অন্যদিকে, কর্মচারীদের বিগত ১৪ মাসের ডিএ দেওয়া হবে বলেও জানা যায়৷ এখানেই শেষ নয়, রাজ্য সরকার মহারাষ্ট্রে সরকারী চাকরি এবং শিক্ষাক্ষেত্রে মারাঠা সম্প্রদায়ের ১৬ শতাংশ সংরক্ষমেও অনুমতি দিয়েছে বলে সূত্রের খবর৷